দিঘলিয়ায় নির্মিত হচ্ছে ৫০ শয্যা বিশিষ্ট ‘হালিমা নজির ডায়াবেটিক হাসপাতাল’
প্রকাশ : ২১ নভেম্বর ২০২৩, ২১:৩১
দিঘলিয়ায় নির্মিত হচ্ছে ৫০ শয্যা বিশিষ্ট ‘হালিমা নজির ডায়াবেটিক হাসপাতাল’
খুলনা প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ নজির আহমেদ ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে দিঘলিয়ায় নির্মিত হতে যাচ্ছে ৫০ শয্যা বিশিষ্ট হালিমা নজির ডায়াবেটিক হাসপাতাল। ইতোমধ্যে প্রকল্পটি অনুমোদন দিয়েছে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়। এ প্রকল্পের ব্যয় ধরা হয়েছে ২৮ কোটি টাকা।


ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান বীরমুক্তিযোদ্ধা শেখ নজির আহমেদের ছেলে ইঞ্জিনিয়ার শেখ মুনির আহমেদ বলেন, মানব সেবার ব্রত নিয়ে ২০১৮ সালে আমি আমার বাবার নামে বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ নজির আহমেদ ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশন প্রতিষ্ঠা করি। এই ফাউন্ডেশন হতদরিদ্র ও পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীকে স্বাবলম্বী করার জন্য বিভিন্ন বিষয় প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষতা উন্নয়ন ও সেলাই মেশিন, ভ্যান প্রদানসহ বিভিন্ন উপকরণ প্রদান করে আসছে। দিঘলিয়া উপজেলার অধিকাংশ মানুষ দরিদ্র সীমার নিচে বসবাস করে। আর্থিক সংকটের কারণে তারা চিকিৎসার অভাবে অনেকে ধুঁকে ধুঁকে মারা যাচ্ছে।


বিশেষ করে ডায়াবেটিক রোগে আক্রান্তরা সুচিকিৎসা না পাওয়ার কারণে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে অমানবিক জীবন যাপন করছে বলে জানিয়ে শেখ মুনির আহমেদ বলেন, খুলনা শহরে একটি ডায়াবেটিক হাসপাতাল থাকলেও শহরের রোগী সামলাতে তাদের হিমশিম খেতে হয়। ফলে দিঘলিয়াসহ পার্শ্ববর্তী উপজেলার প্রান্তিক জনগোষ্ঠী ডায়াটিক রোগের চিকিৎসা থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।


তিনি আরও বলেন, এ রোগের সুচিকিৎসা না পাবার কারণে বিভিন্ন জটিল রোগে সাধারণ মানুষ ভুগছে। আমার প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর কথা চিন্তা করে দিঘলিয়ায় আমার মা মরহুম হালিমা নজিরের নামে ৫০ শয্যা বিশিষ্ট একটি ডায়ািেটক হাসপাতাল নির্মানের উদ্যোগ নিয়েছি। ইতোমধ্যে সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয় প্রকল্পটি অনুমোদন দিয়েছে। ১০তলা ফাউন্ডেশন বিশিষ্ট এ হাসপাতালটি প্রথমে ৫তলা হবে। পরবর্তীতে এটি সম্প্রসারণ করা হবে। বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ নজির আহমেদ ওয়েলফেয়ার ফাউণ্ডেশন ও সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের যৌথ উদ্যোগে দিঘলিয়া উপজেলার ফরমাইশখানায় এ হাসপাতালটি নির্মাণ করা হবে।


এদিকে দিঘলিয়ায় বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ নজির আহমেদ ওয়েলফেয়ার ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান ইঞ্জিনিয়ার শেখ মুনির আহমেদের হাসপাতাল নির্মাণের এ মহতী উদ্যোগকে স্বাগত জানিয়ে এলাকার কয়েকজন ডায়াবেটিক রোগী বলেন, অত্র এলাকায় একটি ডায়াবেটিক হাসপাতালের খুব প্রয়োজন ছিল। বীর মুক্তিযোদ্ধা মরহুম শেখ নজির আহমেদ ছিলেন মানবদরদী মানুষ। বীরমুক্তিযোদ্ধা শেখ নজির আহমেদ ওয়েলফেয়ার ফাউণ্ডেশনের এ উদ্যোগে এলাকাবাসী কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে।


বিবার্তা/লিমন

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com