জিডি করতে তিন হাজার টাকা দাবি!
প্রকাশ : ০৯ অক্টোবর ২০১৬, ১৮:২৫
জিডি করতে তিন হাজার টাকা দাবি!
যশোর প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

যশোরের অভয়নগর উপজেলার বগুড়াতলা গ্রামের মো. সরোয়ার। তিনি ঢাকায় একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের প্রাইভেটকার চালক। তার বোন আম্বিয়া বেগম কাতার প্রবাসী। তার পাসপোর্টটি হারিয়ে গেছে।


পাসপোর্ট হারিয়ে যাওয়ায় জিডি (সাধারণ ডায়েরি) করতে থানায় গিয়েছিলেন মো. সরোয়ার। ডিউটি অফিসার সব শুনে বললেন, ‘বড় কেস, তিন হাজার টাকা লাগবে।’


টাকার অংক শুনে কিছুটা অস্বস্তি বোধ করলেন প্রাইভেটকার চালক সরোয়ার। তিনি গেলেন ওসির (ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা) কাছে। ওসি সব শুনে জিডি লিখে ডিউটি অফিসারের সাথে যোগাযোগ করতে বললেন। অগত্যা জিডি লিখে তিনি ছুটলেন ডিউটি অফিসারের কাছে।


টাকার অংক কমাতে চান না ডিউটি অফিসার। চলল দরকষাকষি। এক পর্যায়ে তিন হাজার টাকার জিডি নেমে আসলো দুই হাজার টাকায়। শেষে রফা হলো আড়াই শ’ টাকায়। রবিবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।


মো. সরোয়ার জানান, তার বোন আম্বিয়া বেগম কাতার প্রবাসী। ডিজিটাল পাসপোর্ট করার জন্য তিনি তার পুরনো পার্সপোর্টটি বাড়িতে রেখে যান। গত ৩ অক্টোবর তিনি বাড়ি থেকে পাসপোর্টটি নিয়ে নওয়াপাড়া বাজারে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে তার কাছে থাকা বোনের পাসপোর্টটি হারিয়ে যায়। রবিবার দুপুরে থানায় জিডি করতে গেলে পুলিশ তিন হাজার টাকা দাবি করে।


সহকারী উপ পরিদর্শক (এএসআই) শেখ ইলিয়াছ হোসেন টাকা নেয়ার বিষয় অস্বীকার করে বলেন ‘হারিয়ে যাওয়া একটি পাসপোর্টের জন্য ৩৫৭ নম্বর জিডি করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, জিডি করতে টাকা নেয়া হয় না।


অভয়নগর থানার ওসি আনিসুর রহমান বিষয়টি জানেন না বলে জানান।


বিবার্তা/তুহিন/কাফী

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com