কাঠের প্রাসাদ
প্রকাশ : ১৯ মার্চ ২০১৮, ২১:২৭
কাঠের প্রাসাদ
বিবার্তা ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

প্রাসাদ বলতেই চোখে ভেসে ওঠে ইট, পাথর, সুরকির বিশাল পরিকাঠামো। তবে পৃথিবীর সব স্থানে প্রাসাদ বলতে তেমনটা নয়। কাঠের তৈরি প্রাসাদও আছে। তবে সেটা দেখতে হলে যেতে হবে রাশিয়ায়। উত্তর রাশিয়ার বেশিরভাগ প্রাচীন স্থাপনা কাঠের তৈরি। ১৮ শতক পর্যন্ত সেখানে যা কিছু দেখতে পাওয়া যায় তার সবই কাঠের তৈরি। তখন সাধারণ মানুষের বাড়িঘর থেকে শুরু করে কল,কারখানা,শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, দোকান এমনকি রাজ প্রাসাদও তৈরি হয় কাঠ দিয়ে। রাশিয়ার সেই সময়ে স্থাপত্যবিদরা ছিলেন অত্যন্ত মেধাবী। তারা নিজেদের মেধা দিয়ে কাঠের গির্জা নির্মাণ করেছিলেন।


রাশিয়াকে শাসন করেছে জারের বংশধররা। মস্কো নদীর পার ঘেঁষে কলমনস্কয়ে তাদের একটি প্রাসাদ আছে। ১৬৬০ সালে এটি নির্মাণ করা হয়। কাঠের তৈরি এই প্রাসাদ ছিল জার আলেক্সেই মিখাইলোভিচ’স এর। পৃথিবীর আটটি বিস্ময়কর স্থাপনার মধ্যে এই প্রাসাদকে তার মধ্যে একটি বিবেচনা করা হয়। তবে এটি জার শাসকদের স্থায়ী বাসভবন ছিল না। জার শাসকদের অবকাশকালীন প্রাসাদ ছিল এটি।


গ্রীষ্মকালে এই প্রাসাদে আসতেন জার শাসকরা। পরবর্তীকালে জারের উত্তরাধিকাররা এই প্রাসাদ ব্যবহার করেন। ১৭০৯ সালে কলমনস্কয়ের প্রাসাদে জন্ম হয় এলিজাবেথ পেত্রনোভা। এই প্রাসাদে রয়েছে ২৫০টি কক্ষ। আধুনিক প্রসাদের সবকিছুই এতে আছে। ১৭৬৮ ও ১৮৭২ সালে কাঠের তৈরি এই প্রাসাদ ধ্বংস হয়ে গিয়েছিল। কিন্তু ভাগ্যক্রমে এর নকশা সংরক্ষিত থাকায় রাশিয়া সরকার ২০১০ সালে এটি পুনর্নির্মাণ করেন। রাশিয়া ঘুরতে আসা লোকজন এই প্রাসাদ দেখতে আসেন।























বিবার্তা/সুমন

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com