আশুলিয়ায় মধ্যযুগীয় কায়দায় কিশোর নির্যাতন
প্রকাশ : ০৩ আগস্ট ২০২০, ১৯:১০
আশুলিয়ায় মধ্যযুগীয় কায়দায় কিশোর নির্যাতন
সাভার প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

সাভারের আশুলিয়ার কাঠগড়া উত্তরপাড়া এলাকায় এক কিশোরকে মধ্যযুগীয় কায়দায় নির্যাতনের পর ঘটনা ধামাচাপা দিয়ে মিমাংসা করার পায়তারা চলছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ নিয়ে ঐ গ্রামে সচেতন মানুষদের মাঝে চাপা ক্ষোভ বিরাজ করছে।


এদিকে, প্রভাবশালী অভিযুক্ত নিজেই নির্যাতনের শিকার পরিবারের বিরুদ্ধে মামলা করতে প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানা গেছে।


জানা যায়, শনিবার (১ আগস্ট) ঈদুল আযহার দিনে কোরবানীর গরু জবাই করা দেখতে যায় কাঠগড়া উত্তরপাড়ার আক্তার হোসেনের ছেলে আরাফাত হোসেন (১৫)। এ সময় শিশু-কিশোরদের তর্ক-বিতর্কের জের ধরে স্থানীয় আব্দুস সাত্তার শিকদারের ছেলে আব্দুল কুদ্দুস শিকদার (৪৫) আরাফাতকে কৌশলে বাড়ির ভিতর ডেকে নিয়ে লাঠি দিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।


আহত অবস্থায় আরাফাতকে সাভার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসা দেয়া হয়। এরপর ২ আগষ্ট এ ব্যাপারে আক্তার হোসেন বাদী হয়ে আশুলিয়া থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।


অভিযোগ দায়েরের পর থেকে আব্দুস সাত্তার শিকদার ও তাঁর ছেলে আব্দুল কুদ্দুস শিকদার ঘটনাটি মিমাংসা করতে দারস্থ হন স্থানীয় ইউপি সদস্য আলী হোসেন ও নাসির উদ্দিনের কাছে।


অভিযুক্ত আব্দুল কুদ্দুস শিকদার এ প্রতিবেদককে জানান, আরাফাতকে মারধোরের ঘটনাটি মিমাংসা হচ্ছে। তাই সংবাদ প্রচার করে আর কি লাভ।


কুদ্দুস শিকদারের পিতা আব্দুস সাত্তার বলেন, বিষয়টি মিমাংসা হওয়ার কথা। যেহেতু তারা (আক্তার) থানায় জিডি করেছে তাই আমার ছেলেকে থানায় পাঠিয়েছি সরাসরি মামলা করতে।


আশুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের ১ নং ওয়ার্ডের সদস্য আলী হোসেন জানান, ঘটনাটি জানাতে আরাফাত তাঁর বাবা আমার কাছে এসেছিল। পরে আশুলিয়া থানার এসআই ফজর আলী বলেছেন, দেখেন বিষয়টি মিমাংসা করতে পারেন কি-না।


আশুলিয়া থানার এসআই ফজর আলী জানান, এ ব্যাপারে অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে। তবে অভিযোগটি রেকর্ড করা হয়নি।


এদিকে, প্রভাবশালীদের চাপের মুখে হয়রানি হচ্ছেন বলে অভিযোগ করেছেন নির্যাতনের শিকার আরাফাতের বাবা আক্তার হোসেন। এ ব্যাপারে পুলিশ কোন ব্যবস্থা গ্রহণ না করায় কাঠগড়া এলাকায় সচেতন মহলের মাঝে ক্ষোভ বিরাজ করছে।


বিবার্তা/এসএ

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com