শীতার্ত শিক্ষার্থীদের মাঝে ছাত্রলীগের শীতবস্ত্র বিতরণ
প্রকাশ : ১৮ জানুয়ারি ২০২১, ১১:২৯
শীতার্ত শিক্ষার্থীদের মাঝে ছাত্রলীগের শীতবস্ত্র বিতরণ
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়সহ (ঢাবি) ঢাকা শহরে অবস্থানরত শীতার্ত শিক্ষার্থীদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ করেছে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। যা এখনো চলমান রয়েছে। ইতোমধ্যে এ কার্যক্রম কুড়িয়েছে প্রশংসাও।


জানা যায়, ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় এবং সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্যের প্রত্যক্ষ দিকনির্দেশনায় ছাত্রলীগের সমাজসেবা সেল গত ১৪ জানুয়ারি (বৃহস্পতিবার) থেকে এ কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছে। প্রতিদিন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মধুর ক্যান্টিনের গোলঘরে বিকাল সাড়ে ৪টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত চলছে এ কার্যক্রম। বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সমাজসেবা সম্পাদক শেখ স্বাধীন মো. শাহেদের তত্বাবধানে এই উদ্যোগ বাস্তবায়িত হচ্ছে।


ইতোমধ্যে এ কার্যক্রম কুড়িয়েছে প্রশংসাও। এ বিষয়ে শীতবস্ত্র গ্রহণ করা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের এক শিক্ষার্থী বিবার্তাকে বলেন, শীতের সময়ে এই কার্যক্রমের মাধ্যমে যে সকল শিক্ষার্থীরা মুখ ফুটে অভাবের কথা বলতে পারছে না তাদের জন্য এটা নিঃসন্দেহে মহান উদ্যােগ। কোন আনুষ্ঠানিকতা ব্যতিরেকে "বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সমাজসেবা সেল এ কাজ করায় তাদের অভিনন্দন ও সাধুবাদ জানাই।



শীতবস্ত্র বিতরণ করার বিষয়ে সার্বিক তত্ত্বাবধানে থাকা ছাত্রলীগের সমাজসেবা সম্পাদক শেখ স্বাধীন মো. স্বাধীন বিবার্তাকে বলেন, "প্রতিবারের থেকে এবারের পরিস্থিতি একটু ভিন্ন। প্রয়োজনের তাগিদে ঢাকায় থাকা শিক্ষার্থীদের আবাসিক ছাত্রী/ছাত্রাবাস বন্ধ থাকায় অনেক কষ্টে থাকতে হচ্ছে। নিজেদের সমস্যার কথা জনসম্মুখে বলতে তাদের সংকোচবোধ হয়, সেটাই স্বাভাবিক। কিন্তু তাই বলে তো আমরা বসে থাকতে পারিনা। বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সর্বদাই আমাদের শিক্ষার্থী ভাই বোনদের সাথে ছিলো এবং আগামীতেও থাকবে।"


ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য বলেন,"প্রায় সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলা না হলেও পরীক্ষাগুলো চলমান। এছাড়াও ৪৩তম বিসিএস প্রিলিমিনারি পরীক্ষার তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। ঢাকায় অনেক শিক্ষার্থী আবার ফিরতে শুরু করেছে। তাদের অসুবিধার কথা চিন্তা করেই আমাদের এই উদ্যোগ। "


সংগঠনটির সভাপতি আল নাহিয়ান জয় বলেন," আমরা কিন্তু এই কর্মসূচি কিছুটা ভিন্ন ভাবে করছি। শীতবস্ত্রের চাহিদার কথা বলা শিক্ষার্থীদের নাম ও পরিচয় সম্পূর্ণরুপে গোপন রাখছি। আমাদের প্রচারটা কেবল শিক্ষার্থীদের কল্যাণে, তারা যেন আমাদের কাছে নিঃসংকোচে আসতে পারে বা বলতে পারে। যতদিন শ্বৈতপ্রবাহ না কাটছে এই প্রক্রিয়া চলমান থাকবে।"


বিবার্তা/রাসেল/এনকে

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com