শ্রীলঙ্কায় বিস্ফোরণে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২০৭
প্রকাশ : ২১ এপ্রিল ২০১৯, ১৮:৪২
শ্রীলঙ্কায় বিস্ফোরণে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ২০৭
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোসহ দেশটির অন্তত ছয়টি স্থানে তিনটি গির্জা ও তিনটি হোটেলে ভয়াবহ বিস্ফোরণের ঘটনায় ২০৭ ব্যক্তি নিহত ও পাঁচ শতাধিক আহত হয়েছেন। খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের ইস্টার সানডে চলাকালে এ বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। খবর দ্য গার্ডিয়ান।


শ্রীলঙ্কার জাতীয় হাসপাতালের পরিচালক অনিল জয়সিংহে জানান, ছয়টি বিস্ফোরণের ঘটনায় ২০০ জনের বেশি ব্যক্তি নিহত এবং পাঁচশতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন।


বিবিসি, রয়টার্স, সিএনএন ও এএফপির প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, রবিবার সকাল পৌনে ৯টার দিকে হওয়া এই বিস্ফোরণের ঘটনায় আহত পাঁচ শতাধিক মানুষকে কলম্বোসহ বেশ কিছু হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে ধারনা করা হচ্ছে।


ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি সূত্রের বরাত দিয়ে এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, স্থানীয় সময় সকাল পৌনে ৯টায় এই ভয়াবহ বিস্ফোরণের ঘটনায় এখন পর্যন্ত ২০৭ জন নিহত ও আরো ৪০০ শ’র অধিক আহত হয়েছেন।


বিবিসির প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, শ্রীলঙ্কার ওই বিস্ফোরণের ঘটনায় অন্তত ২০০ জন নিহত এবং আরো চার শতাধিক আহত হয়েছে। বার্তা সংস্থা এএফপি জানিয়েছে, হোটেল ও গির্জাসহ ছয়টি বিস্ফোরণের ঘটনায় নিহত হয়েছেন ১৪০ জন এবং আহত শতাধিক ব্যক্তিকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।


আরটির এক প্রতিবেদনে জানানো হয়, শ্রীলঙ্কার ওই বিস্ফোরণের ঘটনায় অন্তত ২০০ নিহত এবং আহত হয়েছেন ৪৫০ জন। সিএনএনের প্রতিবেদনে জানানো হয়, ২০৭ নিহত এবং আহত হয়েছেন ৪৫০ জন।


স্কাইনিউজের প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে, রবিবার সকাল পৌনে ৯টার দিকে হওয়া এই বিস্ফোরণের ঘটনায় নিহত হয়েছেন ২০৭ এবং ৪৫০ আহত হয়েছে। নিহতের সংখ্যা আরো বাড়তে পারে বলে ধারনা করা হচ্ছে।


বার্তা সংস্থা রয়টার্স কলম্বোর ন্যাশনাল হাসপাতালের পরিচালকের বরাত দিয়ে জানিয়েছে, রবিবার সকালের এ বিস্ফোরণের ঘটনায় অন্তত অর্ধশতাধিক নিহত এবং ৪০০ শ’র অধিক আহত হয়েছেন।


যে তিনটি গির্জায় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে সেগুলো কোচকিকাদে, কাতুয়াপিটিয়া ও বাট্টিকালোয়া নামক স্থানে অবস্থিত। এসব গির্জায় ইস্টার সানডে উপলক্ষে অনুষ্ঠান চলছিল।


তাছাড়া রাজধানীর সাংগ্রি লা, দ্য কিন্নামোন এবং কিংসবারি নামক আরো তিনটি হোটেলে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। হোটেল তিনটি রাজধানী কলম্বোর কেন্দ্রস্থলে অবস্থিত।


সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রকাশিত ছবি থেকে দেখা যাচ্ছে, কাতুয়াপিটিয়াতে অবস্থিত সেন্ট সেবাস্তিয়ান নামক গির্জার ছাদ ধসে পড়েছে এবং গির্জার মূল স্থানে ছোপ ছোপ রক্তের দাগ লেগে আছে। স্থানীয় গণমাধ্যম বলছে, নিহতদের মধ্যে বিদেশি পর্যটকও আছেন।


পুলিশ বলছে, যে তিনটি গির্জায় বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে তার একটি কলম্বোতে অপর আরেকটি রাজধানীর অদূরের নিগোম্বোতে। তবে তৃতীয় যে গির্জায় বিস্ফোরণ হয়েছে সেটি শ্রীলঙ্কার পূর্বাঞ্চলীয় প্রদেশে বাটিকোলোতে। বিস্ফোরণের প্রকৃতি সম্পর্কে এখনো নিশ্চিত করে কিছু বলা যাচ্ছে না।


হার্শা ডি সিলভা নামের শ্রীলঙ্কার এক সংসদ সদস্য (এমপি) জানান, তিনি একটি হোটেল গিয়ে মর্মান্তিক দৃশ্য দেখেছেন। তিনি বলেন, আমি দেখেছি শরীরের বিচ্ছিন্ন অংশ চারপাশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে। জরুরি সেবাদানকারী বাহিনীর সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছেছেন।


শ্রীলঙ্কা মূলত বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদেরই দেশ। দেশটিতে খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের সংখ্যা মাত্র ছয় শতাংশ। ইস্টার সানডের প্রার্থনার কারণে গির্জাগুলোতে বেশ ভিড় ছিল। পুলিশ বলছে, হামলার জন্য এমন সময়কেই বেছে নিয়েছেন জঙ্গিরা।


বিবার্তা/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com