ধর্মীয় স্বাধীনতা নিয়ে মার্কিন রিপোর্ট প্রত্যাখ্যান ভারতের
প্রকাশ : ২৩ জুন ২০১৯, ১৫:২৩
ধর্মীয় স্বাধীনতা নিয়ে মার্কিন রিপোর্ট প্রত্যাখ্যান ভারতের
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

ধর্মের স্বাধীনতা নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের সাম্প্রতিক রিপোর্টকে খারিজ করে দিয়েছে ভারতের কেন্দ্রীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।


মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র রবীশ কুমার বলেছেন, ভারতীয় সংবিধান সংখ্যালঘু সম্প্রদায়সহ সকল দেশবাসীর মৌলিক অধিকার রক্ষায় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ।


ওই রিপোর্টের পরিপ্রেক্ষিতে তিনি বলেছেন, বিদেশি সংস্থার এই ধরণের রিপোর্টের কোনো বিশ্বাসযোগ্যতা নেই। ভারতে সবসময়ই দেশের নাগরিকদের সাংবিধানিক অধিকারকে অক্ষুন্ন রাখা হয়েছে।


তার দাবি, ভারত ধর্মনিরপেক্ষ রাষ্ট্র, একটি বিশাল গণতান্ত্রিক কাঠামো ও বহু ভাষাভাষীর সমাজের অধিকারী এই দেশ সবসময়ই সহিষ্ণুতার পক্ষেই আস্থা রেখেছে। সংখ্যালঘু সম্প্রদায় দেশের সমস্ত নাগরিকের মৌলিক অধিকার রক্ষায় বদ্ধপরিকর এই দেশ।


ফের বিপুল ভোটে জয়ী হয়ে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা অর্জন করে দেশের ক্ষমতায় আসা নরেন্দ্র মোদি সরকার পক্ষপাতদুষ্ট বলে বের হওয়া ওই মার্কিন রিপোর্টের সমালোচনা করেছে বিজেপিও।


পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র বলেন, এ কথা গোটা বিশ্ব জানে যে ভারতের মতো গণতান্ত্রিক দেশে সবসময়ই ধর্মের অধিকারকে রক্ষা করা হয়। এই দেশ এমন একটি দেশ যেখানে নির্বাচিত গণতান্ত্রিক সরকার জনগণের সাংবিধানিক অধিকারকে রক্ষা করতে কড়া আইনও এনেছে।


যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে সম্প্রতি ‘রিপোর্ট অন ইন্টারন্যাশনাল রিলিজিয়াস ফ্রিডম ২০১৮’ শীর্ষক প্রতিবেদনটি প্রকাশ করা হয়েছে।


প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে, গরু রক্ষার নামে ভারতে যেভাবে মানুষ মেরে ফেলা হচ্ছে বা গণপিটুনি ও হুমকির ঘটনা ঘটে চলেছে তা রোধ করতে ব্যর্থ সরকার। ধর্ম নিরপেক্ষতা লঙ্ঘিত হচ্ছে বলেও দাবি করা হয় প্রতিবেদনে।


সার্বিকভাবে গোটা বিশ্বের ধর্মীয় স্বাধীনতা যাতে বজায় থাকে সে ব্যাপার উদ্যোগ নেয়ার কথাও ওই রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়েছে।


ভারতের ক্ষমতাসীন দল বিজেপির পক্ষ থেকে এক বিবৃতিতে জানানো হয়, প্রাথমিকভাবে এই রিপোর্টের দাবি অনুযায়ী এ দেশে সংখ্যালঘু সম্প্রদায় আক্রান্ত হচ্ছেন একথা সর্বৈব মিথ্যা।


বিজেপি মুখপাত্র অনিল বালুনি বলেছেন, এই ধরণের যে কয়টি ঘটনা ঘটেছে তা আসলে সেই এলাকার কিছু দুষ্কৃতীর কাজ, এর নেপথ্যে কোনো ধর্মীয় মেরুকরণ নেই। ভারতের গণতন্ত্রের ভিত অত্যন্ত শক্ত, এখানে নাগরিকদের যথেষ্ট স্বাধীনতা আছে এবং এ দেশের বিচারব্যবস্থাও অত্যন্ত স্বচ্ছ। সূত্র: এনডিটিভি


বিবার্তা/জাকিয়া

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

বি-৮, ইউরেকা হোমস, ২/এফ/১, 

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com