মুকুট ছিনিয়ে নেয়া সেই সুন্দরী গ্রেফতার
প্রকাশ : ১০ এপ্রিল ২০২১, ১৮:১৬
মুকুট ছিনিয়ে নেয়া সেই সুন্দরী গ্রেফতার
বিনোদন ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

এবার ‘মিসেস শ্রীলঙ্কা’সুন্দরী প্রতিযোগিতার মঞ্চে একটি বড় কাণ্ড ঘটে গেছে। পুরস্কার নেয়ার মঞ্চে ভুল বোঝাবুঝিতে আলোচনা-সমালোচনার মুখে পড়েছে প্রতিযোগিতার এবারের আসর। প্রথমে এক প্রতিযোগিকে বিজয়ী করা হয় এবং মুকুট পরিয়ে দেয়া হয়। কিন্তু কিছু সময়ের মধ্যেই মঞ্চে ঘটে চাঞ্চল্যকর কাণ্ড। বিজয়ীর মুকুট ছিনিয়ে নিয়ে দ্বিতীয় স্থান অধিকারীর মাথায় মুকুটটি পরিয়ে দেন ২০১৯ সালের বিজয়ী ক্যারোলিন জুরি। তার অভিযোগ প্রথম বিজয়ী ডি সিলভা আসলে ডিভোর্স প্রাপ্ত। তিনি এই খেতাবের যোগ্য নন। তবে এখানেই শেষ নয়, নতুন খবর হচ্ছে- মুকুট কেড়ে নেয়া সেই সুন্দরী ক্যারোলিন জুরিকে গ্রেফতার করেছে শ্রীলঙ্কার পুলিশ।


আসরের বিজয়ীকে আহত করার অভিযোগে প্রতিযোগিতার সাবেক বিজয়ী এবং বর্তমান মিসেস ওয়ার্ল্ড ক্যারোলিন জুরিকে গ্রেফতার করেছে শ্রীলঙ্কার পুলিশ। সূত্র : বিবিসি


এ ছাড়া প্রতিযোগিতার মঞ্চে সৃষ্ট গোলমালে জড়িত থাকার অভিযোগে গ্রেফতার করা হয়েছে শ্রীলঙ্কার একজন মডেলকেও।


পুলিশের মুখপাত্র অজিত রোহানা বলেছেন, ‘গত রবিবারের ঘটনায় সাধারণ আঘাত ও অপরাধমূলক কর্মকাণ্ডের অভিযোগে ক্যারোলিন জুরি ও মডেল চুলা পদমেন্দ্রকে পুলিশ গ্রেপ্তার করেছে।’


এ ছাড়া ক্যারোলিন এবং প্রতিযোগিতার প্রধান আয়োজক চন্ডিমাল জয়াসিংহকে পুলিশ বৃহস্পতিবার জিজ্ঞাসাবাদ করেছে। পরে আগামী ১৯ এপ্রিল কলম্বো ম্যাজিস্ট্রেটস আদালতে হাজিরা দেওয়া শর্তে দুজন জামিন পান।


ঘটনাটি ঘটে গত রবিবার। পুরস্কার নেয়ার মঞ্চে ভুল বোঝাবুঝি থেকে পরিস্থিতি বাড়াবাড়ি পর্যায়ে চলে যায়। মাথায় আঘাত নিয়ে মঞ্চ ছাড়েন শ্রীলঙ্কার সবচেয়ে বড় সুন্দরী প্রতিযোগিতার প্রথম বিজয়ী পুষ্পিকা ডি সিলভা। ঘটনার দিন জাতীয় টেলিভিশনের এক অনুষ্ঠানে ‘মিসেস শ্রীলঙ্কা’খেতাব জেতেন এই বিউটি কুইন। পুষ্পিকাকে বিজয়ী ঘোষণার কয়েক মুহূর্ত পর একই মঞ্চে উপস্থিত ওই প্রতিযোগিতার ২০১৯ আসরের বিজয়ী দাবি করেন, পুষ্পিকা পুরস্কার পাওয়ার অযোগ্য, কারণ তার বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে। এরপরই ঘটে সেই কাণ্ড। পুষ্পিকার মাথার মুকুট নিয়ে নেন ওই সাবেক ‘মিসেস শ্রীলঙ্কা’।


শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোর একটি থিয়েটারে মিসেস শ্রীলঙ্কা প্রতিযোগিতার ফাইনাল অনুষ্ঠিত হয়। বিচারকেরা পুষ্পিকা ডি সিলভাকে ২০২১ সালের বিজয়ী ঘোষণা করেন। কিন্তু প্রতিযোগিতার ২০১৯ সালের বিজয়ী ক্যারোলিন জুরি অভিযোগ করেন, পুষ্পিকা প্রতিযোগিতার শর্ত ভঙ্গ করেছেন। কারণ, নিয়ম অনুযায়ী প্রতিযোগীকে বিবাহিত হতে হবে এবং বিবাহ বিচ্ছেদ হওয়া কেউ প্রতিযোগিতায় অংশ নিতে পারবেন না। এরপর পুষ্পিকার মাথায় পরানো মুকুট নিয়ে নেন ক্যারোলিন জুরি।


উপস্থিত দর্শকদের উদ্দেশে ক্যারোলিন জুরি বলেন, ‘বিধি অনুযায়ী, বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছে এমন কেউ এই প্রতিযোগিতায় অংশ নেওয়ার অযোগ্য। তাই, এই মুকুট দ্বিতীয় স্থান অধিকার করা প্রতিযোগীর প্রাপ্য।’


মুকুট ছিনিয়ে নেয়ার পর অশ্রুসজল চোখে মঞ্চ থেকে নেমে যাচ্ছেন পুষ্পিকা ডি সিলভা। পরে পুষ্পিকা জানান, তিনি তার স্বামীর সঙ্গে থাকছেন না, তবে তাদের বিবাহ-বিচ্ছেদ হয়নি।


এক ফেসবুক পোস্টে পুষ্পিকা ডি সিলভা জানান, মাথায় আঘাত পাওয়ার কারণে তাকে হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে হয়েছে।


পুষ্পিকা আরও জানান, ‘বিনা কারণে এভাবে অপমানিত’হওয়ায় তিনি আইনি ব্যবস্থা নেবেন।


শেষ পর্যন্ত আয়োজকেরা পুষ্পিকা ডি সিলভার কাছে ক্ষমা চেয়েছেন। আয়োজকেরা নিশ্চিত হয়েছেন যে, পুষ্পিকা ‘ডিভোর্সি’ নন। এরপর পুষ্পিকাকে মুকুট ও পুরস্কার ফেরত দেয়া হয়েছে।


এ বিষয়ে মিসেস শ্রীলঙ্কা ওয়ার্ল্ডের জাতীয় পরিচালক চন্ডিমাল জয়াসিংহে জানান, পুষ্পিকা ডি সিলভাকে গত মঙ্গলবার তার প্রাপ্য মুকুট ফিরিয়ে দেয়া হয়েছে।


তবে সঠিক তথ্য না নিয়ে এমন অপরাধমূলক কাণ্ড ঘটানোর জন্য ক্যারোলিন জুরি ও মডেল চুলা পদমেন্দ্রকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে।


বিবার্তা/জাই

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com