কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ
প্রকাশ : ২৬ আগস্ট ২০১৮, ২১:৫৭
কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল বন্ধ
মাদারীপুর প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

পদ্মায় নাব্য সংকটের কারণে ঈদের ছুটি শেষে রাজধানীতে কর্মস্থলমুখী যাত্রীদের কাঁঠালবাড়ী ঘাটে পোহাতে হচ্ছে দুর্ভোগ। কাঁঠালবাড়ী ফেরি ঘাটে আটকে আছে প্রায় কয়েকশত যানবাহন। ঈদের দুই সপ্তাহ আগে নাব্য সংকট চরম আকার ধারণ করে। নাব্য সংকটে ফেরি মাঝ নদীতে আটকে যাচ্ছে। কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া নৌরুটের লৌহজং ট্যানিং পয়েন্টে রবিবার ভোরে ডুবোচরে আটকে পড়া ফেরি কিশোরী প্রায় ছয় ঘণ্টা পর শিমুলিয়া ঘাটে পৌঁছে।


এদিকে বিআইডব্লিউটিসির নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানান, রবিবার রাত ৮টা থেকে সোমবার ভোর ৫টা পর্যন্ত শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ী নৌরুটে সব ধরনের ফেরি চলাচল বন্ধ থাকবে। তাই রাতে চলাচলকারী সকল যানবাহনকে পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া রুট ব্যবহার করার জন্য অনুরোধ করেছেন কর্তৃপক্ষ।


আটকে পড়া যাত্রীরা জানান, ঘণ্টার পর ঘণ্টা নদীর মাঝে আটকে থাকতে হয়। প্রথম দিকে সকল ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। পরে শুধুমাত্র ছোট ফেরি চলাচল শুরু করে। খননকাজ চালিয়ে ফেরি চলাচল কিছুটা স্বাভাবিক রাখলেও ঢাকা মুখি যানবাহন ও যাত্রী সাধারণের দুর্ভোগ এখন চরমে। নাব্য সংকটের কারণে কাঁঠালবাড়ী-শিমুলিয়া নৌরুটে ফেরি চলাচল ব্যাহত হচ্ছে। কাঠালবাড়ী ফেরি ঘাটে আটকে আছে প্রায় সহস্রাধিক যানবাহন। এর মধ্যে প্রাইভেটকার ও মাইক্রোবাসের সংখ্যাই বেশি।



নাব্য সংকট ফিরিয়ে আনতে খননকাজ চালিয়ে ঈদের তিন/চারদিন আগে সকল ফেরি চলাচল কিছুটা স্বাভাবিক করা হয়। ঈদের পর ফের লৌহজং ট্যানিং পয়েন্টের চ্যানেল মুখে দেখা দিয়েছে নাব্য সংকট। নাব্য সংকটের কারণে ফেরি চলাচলে অচলাবস্থা সৃষ্টি হওয়ায় দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে হাজার হাজার যাত্রীদের।


বিআইডব্লিউটিএ-এর কাঁঠালবাড়ী ফেরিঘাট ব্যবস্থাপক আব্দুস সালাম মিয়া জানান, নাব্য সংকটে ফেরি মাঝ নদীতে আটকে যাচ্ছে। যাত্রীরা ঘণ্টার পর ঘণ্টা নদীর মাঝে আটকে থাকে। রবিবার বিকেল থেকে ফেরি চলাচল কিছুটা স্বাভাবিক হলেও, পারাপারের অপেক্ষায় ঘাটে আটকে আছে শত শত যানবাহন। শিমুলিয়া-কাঠালবাড়ী নৌরুটে ৮৭টি লঞ্চ ২শতাধিক স্পিডবোট চলাচল করছে ও ১৭টি ফেরির মধ্যে বেশির ভাগ ফেরিই বন্ধ রয়েছে। ঈদের ছুটি শেষ হওয়ায় কাঠালবাড়ী-শিমুলিয়া নৌরুটে ঢাকা মুখি যাত্রীদের ফেরির পাশাপাশি লঞ্চে কিছুটা চাপ রয়েছে।



বিআইডব্লিউটিসি’র কাঁঠালবাড়ী ঘাট সূত্র জানা যায়, ফেরি ‘কিশোরী’ ভোর সাড়ে ৪টার দিকে প্রায় এক হাজার যাত্রী নিয়ে শিমুলিয়ার উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। ফেরিটি ভোর পাঁচটার দিকে লৌহজং ট্যানিং পয়েন্টের ডুবোচরে আটকে পড়ে। প্রায় ১ ঘণ্টার চেষ্টায় ফেরিটি ডুবোচর মুক্ত হলেও ইঞ্জিন বিকল হয়ে গেলে পদ্মায় আটকে পড়ে। পরে উদ্ধারকারী আইটি জাহাজ গিয়ে ফেরিটিকে সকাল সাড়ে দশটার দিকে শিমুলিয়া ঘাটে পৌঁছে দেয়।


বিআইডব্লিউটিএ’র শিমুলিয়া ঘাটের মেরিন কর্মকর্তা আহম্মদ আলী বলেন, নাব্যতা সংকটের কারণে ফেরি চলাচল ব্যহত হচ্ছে।



বিবার্তা/রবিউল/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com