লোহার টুং টাং শব্দে মুখরিত তানোরের কামারপাড়া
প্রকাশ : ১৮ আগস্ট ২০১৮, ১১:৫৫
লোহার টুং টাং শব্দে মুখরিত তানোরের কামারপাড়া
তানোর (রাজশাহী) প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

আর মাত্র ৫দিন পরই পবিত্র ঈদুল আযহা। কোরবানির ঈদ। তাই ঈদকে সামনে রেখে ব্যস্ত সময় পার করছেন কামারশিল্পীরা। তাদের যেন ফুরসত নেই, নেই এখন দম ফেলার সময়ও। জেলার তানোর উপজেলার প্রতিটি কামারপাড়াতে তাই দিনরাত সমান তালে লোহার টুং টাং আর শান দেয়ার শ্যাঁ শ্যাঁ শব্দে মুখরিত হয়ে উঠেছে।


দুইটি পৌরসভা ও সাতটি ইউনিয়ন পরিষদসহ বিভিন্ন কামারপাড়ায় খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে কামারশিল্পীরা দা, বঁটি, চাকু, চাপাতিসহ বিভিন্ন সরঞ্জাম তৈরিতে এখন ব্যস্ত সময় পার করছেন।


শনিবার গোল্লাপাড়া বাজারে সরেজমিন গিয়ে দেখা যায়, প্রায় প্রতিটি কামারই তাদের সরঞ্জামাদি তৈরিতে ব্যস্ত। বেচা-বিক্রি তেমন জমে উঠেনি, তবে তাদের আশা ঈদের দুই-তিন দিন আগে থেকে বিক্রি বেড়ে যাবে। গোল্লাপাড়া বাজারের কামারপাড়ায় কথা হয় গৌতম ষ্টোরের স্বত্বাধিকারী গৌতম দাসের সঙ্গে। তিনি জানালেন, এ মুহূর্তে ব্যস্ততা তো বাড়বেই। আর এটাই স্বাভাবিক। প্রতি বছর এ ঈদে আমাদের কাজের চাপ বেড়ে যায়। এবারও তাই। দা, চাপাতি, ছুরি তৈরি করছি প্রতিদিনই। কিন্তু এখন সেরকম বিক্রি নেই। তবে ঈদের দুই/তিন আগে বিক্রি বেড়ে যায়। চাহিদা বেশি থাকে চাপাতি ও ছুরির। বঁটি তৈরি করলেও ঈদের সময় বেশি একটা চলে না। কারণ এটি সারা বছরই বিক্রি হয়।


তানোর চাপড়া এলাকার কামারশিল্পী তপন মহন্ত জানান, তিনি প্রায় ৩৫ বছর ধরে এ কাজে জড়িত। এলাকার এক সময় কামারদের যে কদর ছিল বর্তমানে তা আর নেই। কারণ আধুনিক যন্ত্রাংশের প্রভাবও পড়েছে এ শিল্পে। মেশিনের সাহায্যে বর্তমানে আধুনিক যন্ত্রপাতি তৈরি হচ্ছে; ফলে আমাদের তৈরি যন্ত্রপাতির প্রতি মানুষ আকর্ষণ হারাচ্ছেন। হয়তো বা এক সময় এ পেশা আর থাকবে না। তবে কোরবানির ঈদের সময় আমরা একটু আশাবাদী হই।



খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, কোরবানির ঈদ সামনে রেখে উপজেলা চাপড়া, কালীগঞ্জহাট, তালন্দহাট ও কামারগাঁসহ বিভিন্ন হাটবাজারে বিক্রির জন্য বাড়িতে দা, বঁটি, চাকু, চাপাতিসহ বিভিন্ন সরঞ্জাম তৈরি করছেন কামাররা। এসব ব্যবহার্য জিনিস স্থানীয় চাহিদা মেটানোর পাশাপাশি দেশের বিভিন্ন স্থানে পাইকারি ব্যবসায়ীরা নিয়ে যাচ্ছেন। স্থানীয় বাজার থেকে লোহা কিনে সেগুলো পুড়ে দা, বঁটি, চাপাতি, চাকুসহ বিভিন্ন জিনিসপত্র তৈরি করছেন কামাররা। বর্তমানে আধুনিক যন্ত্রাংশের প্রভাবে কামারশিল্পের দুর্দিন চললেও ঈদুল আযহা সামনে রেখে জমে উঠেছে এ শিল্প।


বিবার্তা/অসীম/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com