ভুল চিকিৎসায় মৃত্যু পথযাত্রী মিলন বাঁচতে চায়
প্রকাশ : ১২ জানুয়ারি ২০১৮, ১৮:৩২
ভুল চিকিৎসায় মৃত্যু পথযাত্রী মিলন বাঁচতে চায়
নাটোর প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার বনপাড়া পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালের প্রতিষ্ঠাতা ডা: সিদ্দিকুর রহমান পাটোয়ারীর ভুল চিকিৎসায় আজ মৃত্যু পথযাত্রী মিলন। বিভিন্ন হাসপাতালে হাজার হাজার টাকা খুইয়ে দিশেহারা কৃষক মিলনের পরিবার। মিলন প্রামানিক (২৫) নাটোরের বড়াইগ্রাম উপজেলার চান্দাই ইউনিয়নের চান্দাই গ্রামের আকবর প্রামানিকের ছেলে। অন্যের জমিতে কাজ করে চলে আকবর ও তার ছেলে মিলনের সংসার।


শুক্রবার পরিবার থেকে ফোন করে জানালে সরজমিনে তার বাড়িতে গিয়ে জানা যায়, মিলনের পেটে অস্বাভাবিক ব্যথার কারণে তাকে ১৫ আগস্ট বনপাড়া পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে মোট ৯ রকম পরীক্ষা-নিরীক্ষার পর তার হার্নিয়া রোগ হয়েছে বলে জানান কর্তব্যরত চিকিৎসক।


পরে ১৬ আগস্ট রাত ২টায় বনপাড়া পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালের প্রতিষ্ঠাতা ডা: সিদ্দিকুর রহমান পাটোয়ারী ও ডা: মাহবুবুর রহমান অপারেশন করেন মিলনের। তার পরদিন থেকে মিলনের অবস্থার আরো অবনতি হয় এবং পেটের ব্যথা আরো বাড়তে থাকে। ১৯ আগস্ট পর্যন্ত পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি থাকার পরও কোনো উন্নতি না হওয়ায় মিলনকে রাজশাহীর কোনো হাসপাতালে নিয়ে যেতে বলা হয়।


ভুক্তভোগী পরিবার জানান, পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে সর্বমোট প্রায় ২০ হাজার টাকা খরচ হয়। পরে ইসলামী ব্যাংক মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল রাজশাহীতে রোগীকে ভর্তি করলে সেখানে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে জানা যায়, মিলনের পেটের নাড়িতে প্যাঁচ লেগেছে ও পিত্তথলিতে পাথর হয়েছে এবং হার্নিয়া অপারেশন যে রগে হয়েছে সে রগ না কেটে অন্য রগ কাটা হয়েছে বলে চিকিৎসক জানান। পরে বিষয়টির সত্যতা জানার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে সেখানেও কর্তব্যরত চিকিৎসক একই কথা বলেন।


মিলনের বাবা আকবর প্রামানিক জানান, অনেকের কাছ থেকে ধার ও সাহায্য-সহযোগিতা নিয়ে আমরা ৭০ হাজার টাকা জোগাড় করেছিলাম। কিন্তু কিছুদিনের মধ্যে তা শেষ হয়ে যায়, ফলে চিকিৎসা না করাতে পেরে আমার ছেলেকে বাড়িতে নিয়ে আসি। মিলন এখন বিনা চিকিৎসায় বাড়িতে পড়ে আছে। খাবার ও ঔষধ কেনার টাকা না থাকায় হাট বাজারের দোকান ও সাধারণ জনগণ থেকে হাত পেতে সাহায্য নিয়ে মিলনের পরিবারের দিন যাচ্ছে।


মিলনের মা বলেন, ডা: সিদ্দিকুর রহমান পাটোয়ারী আমার ছেলে মিলনের ভুল চিকিৎসা করার কারণে আজ সে মৃত্যু পথযাত্রী। তাই ছেলেকে বাঁচাতে স্থানীয় সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস এমপি, চেয়ারম্যান ও বিভিন্ন জনপ্রতিনিধিসহ বৃত্তবানদের সহায়তা ও ন্যায্য বিচার চান এই অসহায় মা।


উল্লেখ্য, অতীতেও বনপাড়া পাটোয়ারী জেনারেল হাসপাতালে বিভিন্ন রোগীর ভুল চিকিৎসা প্রদান ও নারী বিষয়ক নানা বদনাম রয়েছে হাসপালের প্রতিষ্ঠাতা ডা: সিদ্দিকুর রহমান পাটোয়ারীর বিরুদ্ধে।


বিবার্তা/শুভ/শান্ত/শাহনেওয়াজ

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com