সেলফিতে পোজ দিলো তারা!
প্রকাশ : ২৩ এপ্রিল ২০১৯, ১৩:৪৪
সেলফিতে পোজ দিলো তারা!
বিবার্তা ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

গণপ্রজাতন্ত্রী কঙ্গোতে এক বনরক্ষীর তোলা সেলফিতে দু'টি গরিলার স্বাভাবিক ভঙ্গিতে দাঁড়িয়ে থাকার বিষয়টি আলোচনা তৈরি করেছে।


চোরাশিকারীদের হাতে তাদের মা-বাবা মারা যাবার পর দেশটিতে অবস্থিত গোরিলাদের অনাথাশ্রম ভিরুঙ্গা ন্যাশনাল পার্কে ছবির গরিলাগুলো বেড়ে ওঠে।


পার্কটির উপ-পরিচালক বলেছেন, যেই সেবকরা শৈশব থেকে তাদের দেখাশোনা করেছে, গরিলাগুলো তাদের সেবকদের অনুকরণ করা শিখেছে। তারা মনে করে পার্কের ওই বনরক্ষীরা তাদের অভিভাবক।


উপ-পরিচালক ইনোসেন্ট এমবুরানুমওয়ে জানান, ওই দু'টি গরিলার মা ২০০৭ সালে চোরাশিকারীদের হাতে মারা যায়। সে সময় তাদের বয়স ছিল দুই ও চার মাস। ওই ঘটনার কিছুদিন পর গরিলা দুটিকে ভিরুঙ্গার সেঙ্কুয়েকুয়ে আশ্রমে নিয়ে যাওয়া হয় এবং সেখানেই তারা বেড়ে ওঠে।


তিনি বলেন, যেহেতু তারা মানুষের সান্নিধ্য পেয়ে বড় হয়েছে, তাই গরিলাগুলো মানুষের অনুকরণ করে এবং মানুষের মত দুই পায়ে দাঁড়িয়ে ছবি তুলেছে। তবে সাধারণত গরিলারা এরকম করে না।


তিনি আরো বলেন, আমি ছবিটি দেখে ভীষণ অবাক হয়েছি...এটি হাস্যকরও। একটি গরিলা দুই পায়ে দাঁড়িয়ে মানুষের অনুকরণ করছে - বিষয়টি দেখতে যথেষ্ট হাস্যকর।


আপাতদৃষ্টিতে দেখে মজার কাজ মনে হলেও কঙ্গোতে বনরক্ষীর পেশাটি যথেষ্ট বিপদজনক। ১৯৯৬ সাল থেকে ভিরুঙ্গা ন্যাশনাল পার্কের ১৩০ জন বনরক্ষী নিহত হয়েছেন।


গণপ্রজাতন্ত্রী কঙ্গোর পূর্বাঞ্চলে সরকারের সাথে বিভিন্ন সশস্ত্র বিচ্ছিন্নতাবাদী গ্রুপের সংঘাতের ঘটনা ঘটে থাকে প্রায়ই। এই গ্রুপগুলোর কয়েকটির ঘাঁটি ভিরুঙ্গা ন্যাশনাল পার্ক এবং তারা অনেক ক্ষেত্রেই পশু চোরাশিকারের সাথে জড়িত থাকে। সূত্র: বিবিসি


বিবার্তা/জাকিয়া

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com