মেলায় বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা বইয়ের বিক্রি বাড়ছে
প্রকাশ : ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৬:০৪
মেলায় বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা বইয়ের বিক্রি বাড়ছে
আদনান সৌখিন
প্রিন্ট অ-অ+

ভাষার মাস ফেব্রুয়ারি।এ মাসের সাথে জড়িয়ে রয়েছে বাঙালির হৃদয়ের আবেগ ও উচ্ছ্বাস।তাই এ মাসের শুরু থেকেই বইপ্রেমীদের হৃদয়ের খোরাক জোগায় অমর একুশে বইমেলা।ইতোমধ্যে বইপ্রেমীদের স্রোত আর পদচারণায় মুখরিত বাংলা একাডেমির প্রাঙ্গণ।


১৯৭২ সালের ৮ ফেব্রুয়ারি চিত্তরঞ্জন সাহা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের বর্ধমান হাউজ প্রাঙ্গণে বটতলায় এক টুকরো চটের ওপর কলকাতা থেকে আনা ৩২টি বই সাজিয়ে বইমেলার শুরু করেন।এই ৩২টি বই ছিলো চিত্তরঞ্জন সাহা প্রতিষ্ঠিত স্বাধীন বাংলা সাহিত্য পরিষদ (বর্তমান মুক্তধারা প্রকাশনী) থেকে প্রকাশিত বাংলাদেশী শরণার্থী লেখকদের লেখা বই।



সেই বইমেলা থেকে বর্তমান বই মেলার অনেক পার্থক্য থাকলেও পাঠকদের মনে আবেগের কমতি নেই মেলাকে ঘিরে। এখন বইমেলায় প্রতিদিন প্রায় ১০০-১৫০ এর উপর নতুন বইয়ের মোড়ক উন্মোচন হয়। তবে পাঠক বিচারে আগ্রহের কেন্দ্রে রয়েছে বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশের স্বাধীনতা নিয়ে লেখা বইগুলো।


বইমেলা ঘুরে বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্মজীবনী, কারাগারের রোজনামচা, সিক্রেট ডকুমেন্তস অব ইন্টেলিজেন্স ব্রাঞ্ছ (চারটি খণ্ড) এসব বইয়ের তুমূল পাঠকপ্রিয়তা লক্ষ্য করা গেছে। এছাড়া অসমাপ্ত আত্মজীবনীর বেশ কয়েকটা ইংরেজি অনুবাদও প্রকাশ করা হয়েছে এবারের মেলায়। দেশি-বিদেশি পাঠকরা সংগ্রহ করছেন সেগুলো।



এই প্রতিবেদকের কথা হয় বইমেলায় ছাত্রলীগের স্টল মাতৃভূমির সেলসম্যান আফজাল আহমেদের সাথে। তিনি বিবার্তাকে বলেন, বইমেলার প্রথমদিন থেকেই আমাদের স্টলে সবচেয়ে বেশি বিক্রিত বই অসমাপ্ত আত্মজীবনী ও কারাগারের রোজনামচা। এই ১৮ দিনে প্রায় সাড়ে সাত হাজার অসমাপ্ত আত্মজীবনী বিক্রি হয়েছে। রোজনামচা বিক্রি হয়েছে প্রায় ৪ হাজারের মত। আর প্রায় প্রতিদিনই বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান বা সংগঠন থেকে ১০০/১৫০ টি করে বই নিয়ে যায়।


মেলা প্রাঙ্গণ ঘুরে ভিড় লক্ষ্য করা গেছে বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের স্টলে। নাজনিন সুলতানা নামে এক বিক্রয় প্রতিনিধি বিবার্তাকে বলেন, আমাদের স্টলে প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে লেখা ছয়টি নতুন বই এসেছে। কিন্তু সবকিছু ছাড়িয়ে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা বইগুলোর চাহিদা বেশি। যেমন আজকে জার্মানির এক নাগরিক ‘সিক্রেট ডকুমেন্টস অব ইন্টেলিজেন্স ব্রাঞ্ছ’ এর সবগুলো খণ্ড একসাথে নিয়ে গেছেন। এছাড়া ২ দিন আগে ইংল্যান্ড থেকে আসা এক মহিলা অসমাপ্ত আত্মজীবনীর বাংলা এবং ইংরেজি ভার্সন দুটি কিনে নিয়ে যান।


সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে অবস্থিত ইউনিভারসিটি পালিকেশনে সবচেয়ে বেশি বিক্রি হয়েছে এস এ করিমের লেখা শেখ মুজিব বইটি। গত ৮ দিনে প্রায় ৭০০ কপি বিক্রি হয় এটি। এছাড়া শেখ হাসিনার সাদা কালো, এবার প্রকাশিত হওয়া ‘আমার দেখা নয়া চীন’ বইটি ব্যাপক সারা ফেলেছে বলে জানান সেলসম্যান জুলফিকার।



তবে এর ব্যতিক্রম লক্ষ্য করা গছে তাম্রলিপি প্রকাশনিতে। সেখানে সবচেয়ে বেশি বিক্রিত বই সম সাময়িক লেখকদের লেখা বইগুলো। এর মধ্যে রয়েছে ব্রেইন বুস্টার, স্টুডেন্ট হ্যাকস, নেভার স্তপ লারনিং, মস্তিষ্কের ক্যানভাস বইগুলো। তরুণ প্রজন্মের বেশিরভাগই ঝুঁকছেন এসব বইয়ের দিকে। জাফর ইকবাল এর ‘প্রোজেক্ট আকাশনীল’ এর চাহিদাও রয়েছে ভালই।


মাদারীপুর থেকে তিন মেয়েকে নিয়ে মেলায় বই কিনতে এসেছেন মাধবী রায়। তিনি বিবার্তাকে বলেন, আমি প্রতিবছর বাচ্চাদের নিয়ে একদিন বা দুই দিন বইমেলায় আসি। সারাদিন থাকি, আর প্রচুর বই কিনি। তবে ইদানিং কেনার মত বই তেমন পাচ্ছি না। কনটেন্ট এর চেয়ে ইদানিং কনটেক্সট এর উপর নজর বেশি মানুষের। আমি আজকে এমন কিছু বই দেখলাম, যেগুলোর ভেতর যাচ্ছেতাই লেখা। কিন্তু মলাট দেখে মনে হচ্ছে না যেন কি! এটা দুঃখজনক। আর মৌলিক বইগুলোও কমে গেছে ইদানিং। আমার মেয়েগুলোকে কিছু বই কিনে দিলাম, কিন্তু তাদের পছন্দ সেই নতুন লেখকদের কনটেক্সটনির্ভর বইগুলোর দিকে।



এবারের আয়োজনের সার্বিক পরিস্থিতি সম্পর্কে জানতে চাইলে আয়োজকদের পক্ষ থেকে আতাউর রহমান বিবার্তাকে বলেন, বিকেলে মেলা শুরু হলেও মূলত সন্ধ্যার পরে থেকেই জমে উঠে। এবার মুজিব বর্ষ উপলক্ষে সমস্ত মেলায়ই আমরা নানা ধরনের বিশেষ আয়োজন রেখেছি। সে হিসেবে আমরা বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে লেখা বইগুলোর উপর বেশি নজর দিচ্ছি। এর ফলে আমরা পাঠকের ভাল সাড়া পাচ্ছি।


প্রসঙ্গত, ২ ফেরুয়ারি থেকে মেলা শুরু হয়। ২৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ছুটির দিন ছাড়া প্রতিদিন বিকেল ৩টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত মেলা খোলা থাকবে। ছুটির দিন বেলা ১১টা থেকে রাত ৯টা এবং ২১ ফেব্রুয়ারি সকাল ৮টা থেকে রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত মেলা চলবে।


বিবার্তা/আদনান/উজ্জ্বল/জাই

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com