‘বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডে জিয়া পরিবার জড়িত’
প্রকাশ : ২১ আগস্ট ২০১৮, ১০:৫২
‘বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডে জিয়া পরিবার জড়িত’
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা (টেলিভিশন থেকে নেয়া ছবি)
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ১৫ আগস্ট জাতির জনক হত্যাকাণ্ডে জিয়া পরিবার জড়িত, এতে কোনো সন্দেহ নেই। কারণ স্বপরিবারে জাতির জনকের হত্যাকাণ্ডে জড়িতদের পরবর্তীতে রাষ্ট্রক্ষমতা দখল করে জিয়া পুরস্কৃত করেছিলেন। তাদের পূনর্বাসন করেছিল। গাড়িতে পতাকা তুলে দিয়েছিল। যেটি খালেদা জিয়াও অব্যাহত রেখেছিল।


আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় নিহতদের স্মরণে স্থাপিত অস্থায়ী শহীদ বেদীতে শ্রদ্ধার্ঘ অর্পণ শেষে এক আলোচলা সভায় মঙ্গলবার সকালে তিনি এসব কথা বলেন।


বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের দুঃশাসনের সমালোচনা করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, তাঁদের হাত থেকে বিদেশী কূটনীতিকরাও রেহাই পায় নি। তারা সিলেটে হযরত শাহজালাল (রহ.) এর মাজাজে ব্রিটিশ হাইকমিশনার আনোয়ার চৌধুরীর ওপরও হামলা চালায়।


২০০৪ সালের ২১ আগস্ট আওয়ামী লীগের সমাবেশে নারকীয় হামলার কথা স্মরণ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, সেদিন ১৩ টি গ্রেনেড হামলা চালানো হয়েছিল। এর মধ্যে একটি বিস্ফোরিত হয়নি। বাকী সবগুলোর আঘাতে আমাদের দলীয় নেতাকর্মীরা হতাহত হয়েছেন। বিএনপি-জামায়াত জোট সরকারের হাত থেকে আওয়ামী লীগ নিরাপদ ছিল না। শুধু আওয়ামী লীগ কেন বিদেশি কূটনীতিকরাও নিরাপদ নন।


অনুষ্ঠানে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের, প্রেসিডিয়াম সদস্য, সম্পাদক মন্ডলীর সদস্যসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন।


এর আগে সকালে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার অস্থায়ী বেদিতে শ্রদ্ধা জানান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।


২০০৪ সালের ২১ আগস্ট ২৩ বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে আওয়ামী লীগের ‘সন্ত্রাস, জঙ্গিবাদ ও দুর্নীতিবিরোধী’ সমাবেশে বর্বরোচিত গ্রেনেড হামলায় আওয়ামী লীগের মহিলাবিষয়ক সম্পাদক ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের সহধর্মিণী আইভি রহমানসহ ২৪ জন নেতাকর্মী শাহাদাত বরণ করেন।


গ্রেনেডের স্প্লিন্টারের আঘাতে আহত হন পাঁচ শতাধিক নেতাকর্মী। আহত হন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরাও। আহত আওয়ামী লীগ নেতাকর্মী-সমর্থকদের অনেকে এখনও স্প্লিন্টারের আঘাত নিয়ে মানবেতর জীবনযাপন করছেন।


দিনটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন উপলক্ষে আওয়ামী লীগ বিস্তারিত কর্মসূচি ঘোষণা করেছে।


বিবার্তা/তৌহিদ/সোহান

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com