কেরানীগঞ্জে বাক প্রতিবন্ধীকে ধর্ষণের পর পুড়িয়ে হত্যার অভিযোগ
প্রকাশ : ৩০ নভেম্বর ২০২২, ০০:৪৯
কেরানীগঞ্জে বাক প্রতিবন্ধীকে ধর্ষণের পর পুড়িয়ে হত্যার অভিযোগ
ফাইল ছবি
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

ঢাকার কেরানীগঞ্জের কদমতলীতে লতা সরকার (২৩) নামে এক বাক প্রতিবন্ধী নারীকে ধর্ষণের পর গায়ে আগুন দিয়ে পুড়িয়ে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে।


সোমবার (২৮ নভেম্বর) রাতে এ ঘটনাটি ঘটে। কেরানীগঞ্জ দক্ষিণ থানার পুলিশ তাকে দগ্ধ অবস্থায় উদ্ধার করে শেখ হাসিনা বার্ন এন্ড প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে নিয়ে আসলে চিকিৎসক তাকে ভর্তি রাখেন। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মঙ্গলবার (২৯ নভেম্বর) রাত ৮ টায় আইসিইউতে মারা যান তিনি।


মৃত লতা সরকার কেরানীগঞ্জ মডেল থানা কলাতিয়া বাদল্লাপুর গ্রামের রতন সরকারের মেয়ে। তিন বোন, দুই ভাইয়ের মধ্যে সে ছিল দ্বিতীয়।


নিহতের ছোট ভগ্নিপতি মোহাম্মদ ফারুক মিয়া বলেন, গতকাল সন্ধ্যার দিকে আমার বাক প্রতিবন্ধী শালিকাকে এলাকার কয়েকজন ফুসলিয়ে বাড়ির কাছ থেকে নিয়ে যায়। পরে অনেক খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে পুলিশের মাধ্যমে মধ্যরাতে খবর পাই। এই ঘটনায় পুলিশ একজনকে গ্রেফতার করেছে। এলাকার তিনজন নিখোঁজ আছে তাদের উপর আমাদের সন্দেহ হচ্ছে।


দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানার ওসি শাহ জামাল বিবার্তাকে বলেন, আমরা ট্রিপল ৯৯৯ এর খবর পেয়ে ঘটনাস্থল সুবাড্ডা সাবান ফ্যাক্টরির গলি চিতা খোলা এলাকা থেকে দগ্ধ অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে শেখ হাসিনা বার্ন ইউনিটে পাঠানো হয়। চিকিৎসকের বরাত দিয়ে তিনি বলেন, তার শরীরে ৬৫ শতাংশ দগ্ধ হয়েছে। চিকিৎসাধীন অবস্থায় আজ রাত ৮ টায় আইসিইউতে মারা যান তিনি। এ ঘটনায় একজনকে আটক করা হয়েছে এবং একটি হত্যা মামলা দায়ের করা হয়েছে।


নিহতের ছোট বোন পাখি আক্তার বিবার্তাকে বলেন, আমার বোন আমাদেরকে আঁকার ইঙ্গিতে বুঝিয়ে বলে। ওকে ধর্ষণ করা হয়েছে এবং ইশারায় বলে সে ওদেরকে চিনে। আমরা আমার বোনকে হত্যার ঘটনা সুষ্ঠু তদন্ত চাই এবং অপরাধীদের ফাঁসির দাবি জানাচ্ছি।


বিবার্তা/বুলবুল/বিএম

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com