এক সঙ্গে ৫ সন্তানের জন্ম, বেঁচে রইল না কেউ
প্রকাশ : ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৮:০৩
এক সঙ্গে ৫ সন্তানের জন্ম, বেঁচে রইল না কেউ
চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

চুয়াডাঙ্গা দামুড়হুদায় এক সঙ্গে পাঁচ সন্তানের জন্ম দিয়েছেন সালেমা খাতুন নামে এক গৃহবধূ। ২২ সেপ্টেম্বর, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর উপজেলার বেসরকারি স্বাস্থ্যসেবা কেন্দ্র এ্যাপোলো ক্লিনিক এণ্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারে নরমাল ডেলিভারির মাধ্যমে ৫ সন্তান


জন্ম দেন তিনি। এর কিছুক্ষণ পরই একে একে ৫ সন্তানই মারা যায়। তবে প্রসৃতি সালেমা খাতুন সুস্থ আছেন।


সালেমা খাতুন (২৭) চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়নের কানাইডাঙ্গা গ্রামের ঝন্টু মিয়ার স্ত্রী।


বিষয়টি নিশ্চিত করে কর্তব্যরত চিকিৎসক মাসুমা ফেরদৌস বলেন, বাচ্চাদের বয়স সাড়ে ৪ মাস। মূলত জরায়ুর সমস্যার কারণে প্রসব করেন তিনি। একটি মেয়ে, দুটি ছেলে এবং বাকি দুটা এক সঙ্গে জোড়া থাকায় চিহ্নিত করা যায়নি। প্রসৃতি সালেমা খাতুন চিকিৎসাধীন এবং সুস্থ আছেন।


সালেমার খাতুনের স্বামী ঝন্টু মিয়া বলেন, বিকেলে স্ত্রীর পেট ব্যাথা হলে ক্লিনিকে নিয়ে আসি। এরপরই একে একে পাঁচটি সন্তান প্রসব করে। কিছুক্ষণের মধ্যেই পাঁচ সন্তানই আল্লাহপাক ডাকে সাড়া দিয়েছে। বিয়ের ১০ বছর পর সন্তানের মূখ দেখলাম। কিন্তু কেউ বেঁচে রইল না। বর্তমানে আমার স্ত্রী সুস্থ আছেন।


অত্র প্রতিষ্ঠানের ব্যবস্থাপনা পরিচালক ডা. মামুন আর রশীদ বলেন, সন্ধার আগে স্বামীর সঙ্গে ওই প্রসৃতি বিকেলে পেট ব্যাথা নিয়ে ক্লিনিলে আসেন। কর্তব্যরত চিকিৎসকের সহযোগিতায় সন্তান প্রসব করেন। এর কিছুক্ষণের মধ্যেই পাঁচ নবজাতকের মৃত্যু হয়।


বিবার্তা/এমবি

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com