নদীতে ফেলে দুই সন্তানকে হত্যা, বাবার যাবজ্জীবন
প্রকাশ : ২২ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৯:৩২
নদীতে ফেলে দুই সন্তানকে হত্যা, বাবার যাবজ্জীবন
কুষ্টিয়া প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

কুষ্টিয়ার ভেড়ামারায় ব্রিজের ওপর থেকে পদ্মা নদীতে ফেলে মুন্নী খাতুন (১০) ও মুনসুর আলী (৫) নামের দুই শিশু সন্তানকে হত্যার দায়ে বাবা আব্দুল মালেককে (৪২) যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। একইসঙ্গে তাকে ২৫ হাজার টাকা অর্থদণ্ড অনাদায়ে আরও তিন মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়।


বৃহস্পতিবার (২২ সেপ্টেম্বর) দুপুরে কুষ্টিয়া অতিরিক্ত দায়রা জজ ২য় আদালতের বিচারক মো. রেজাউল করিম আসামির উপস্থিতিতে এই রায় ঘোষণা করেন। রায় প্রদান শেষে আসামিকে জেলা কারাগারে প্রেরণ করা হয়।


দণ্ডপ্রাপ্ত আব্দুল মালেক ভেড়ামারা উপজেলার বাহিরচর বারদাগ এলাকার আব্দুস সামাদের ছেলে।


আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০১২ সালের ১৭ আগস্ট সকালে দুই শিশু সন্তান মুন্নী খাতুন এবং মুনসুর আলীকে সেলুনে চুল কাটানোর কথা বলে বাড়ী থেকে নিয়ে যায় তার বাবা আব্দুল মালেক। এরপর ভেড়ামারা লালন শাহ সেতুর মাঝখানে গিয়ে শিশু সন্তানদের হত্যার উদ্দেশ্যে পদ্মা নদীতে ফেলে দেয়। ঘটনার পরদিন সন্তানদের মা মমতাজ খাতুন বাদী হয়ে তার স্বামী আব্দুল মালেকের বিরুদ্ধে ভেড়ামারা থানায় হত্যা মামলা দায়ের করে। মামলাটি তদন্ত শেষে ২০১৩ সালের ৭ ফেব্রুয়ারি মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ভেড়ামারা থানার পরিদর্শক রিয়াজুল ইসলাম আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ এনে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। স্বাক্ষ্যপ্রমাণ শেষে আদালত আজ এই রায় ঘোষণা করেন।


বিবার্তা/শরিফুল/জামাল

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com