সৌম্য-এবাদত জাদুতে জিম্বাবুয়ের করুণ পরাজয়
প্রকাশ : ১৯ অক্টোবর ২০১৮, ১৮:৪২
সৌম্য-এবাদত জাদুতে জিম্বাবুয়ের করুণ পরাজয়
স্পোর্টস ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

বল হাতে জয়ের অর্ধেক কাজটা আগেই সেরে রেখেছিলেন এবাদত হোসেন-মোহাম্মদ সাইফ উদ্দিনরা। এরপর ছোট লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে অধিনায়ক সৌম্য সরকার অপরাজিত সেঞ্চুরি হাঁকিয়ে বাকি দায়িত্বটুকু পূরণ করলেন। ওয়ানডে সিরিজের আগে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচটা তাই হারের হতাশায় শেষ করতে হলো জিম্বাবুইয়ানসকে।


শুক্রবার সাভারের বিকেএসপির চার নম্বর মাঠে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড একাদশ ৮ উইকেটে হারাল জিম্বাবুইয়ানসকে। এই নামের আড়ালে অবশ্য জিম্বাবুয়ে জাতীয় ক্রিকেট দলের সব তারকাই খেলেন গা গরমের ম্যাচটিতে। টসে জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ৪৫.২ ওভারে মাত্র ১৭৮ রানে অলআউট হয় সফরকারীরা। জবাবে সৌম্যর ১১৪ বলে ১০২ রানের ইনিংসে ভর দিয়ে ১১ ওভার হাতে রেখে ২ উইকেট হারিয়ে জয় তুলে নেয় বিসিবি একাদশ।


সহজ লক্ষ্যে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই ধাক্কা খায় বিসিবি একাদশ। দলীয় ১১ রানের মাথায় বিদায় নেন ওপেনার মিজানুর রহমান (৮)। এরপর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আসন্ন ওয়ানডে সিরিজের দলে ডাক পাওয়া ফজলে রাব্বিকে নিয়ে ৪১ রানের জুটি গড়ে প্রাথমিক চাপ সামাল দেন সৌম্য। জুটিতে রাব্বির অবদান ১৩ রান।


তৃতীয় উইকেটে সৌম্য ও মোসাদ্দেক হোসেনের দারুণ জুটি বিসিবি একাদশকে জয়ের কাছাকাছি নিয়ে যায়। এশিয়া কাপের দলে থাকলেও ঘরের মাঠে জিম্বাবুয়ে সিরিজে উপেক্ষিত এই দুই তারকার ব্যাটিং হতাশ করে জিম্বাবুইয়ানসের বোলারদের। চোট পেয়ে মোসাদ্দেক ৩৩ রানে আহত অবসরে গেলেও দলকে জিতিয়েই মাঠ ছাড়েন সৌম্য। হার না মানা ইনিংসে ১৩টি চার ও ১টি ছয় মারেন তিনি। সঙ্গী আরিফুল হক অপরাজিত থাকেন ৯ রানে।


এর আগে জিম্বাবুইয়ানসের বিপক্ষে বিসিবি একাদশের এবাদত ও সাইফ বল হাতে ইনিংস শুরু করেন। সফরকারীদের প্রথম তিন উইকেটের দুটি নেন এবাদত। মাঝেরটি যায় সাইফের ঝুলিতে। এরপর ইনিংসের শেষ দিকে ফের আক্রমণে আসেন দুজন। তাদের তোপে মাত্র ৭ রানে শেষ ৫ উইকেট হারায় জিম্বাবুইয়ানস।


তরুণ ডানহাতি পেসার এবাদত ৯ ওভার বল করে ২টি মেডেনসহ ৫ উইকেট নেন ১৯ রানের বিনিময়ে। আর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে আসন্ন ওয়ানডে সিরিজের দলে থাকা অল-রাউন্ডার সাইফ ৭.২ ওভারে ৩২ রান দিয়ে শিকার করেন ৩ উইকেট।


কেবল অধিনায়ক হ্যামিল্টন মাসাকাদজা ও এলটন চিগুম্বুরা ছাড়া দাঁড়াতেই পারেননি দলটির কেউ। মাসাকাদজা-চিগুম্বুরা মিলে করেন ১৪৯ রান। বাকি ব্যাটসম্যানরা কেউ দুই অঙ্কের কোটা ছুঁতে পারেনি।


ইনিংসের গোড়াপত্তন করতে নেমে ১৪ চার ও ১ ছয়ে ১৩৮ বলে ১০২ রান করে নবম ব্যাটসম্যান হিসেবে এবাদতের বলে আউট হন মাসাকাদজা। চিগুম্বুরার ব্যাট থেকে আসে ৮৩ বলে ৪৭ রান। তার ইনিংসে ছিল ৪টি চার ও ১টি ছয়।


৪৭ রানে প্রথম ৫ উইকেট হারানো জিম্বাবুইয়ানস মাসাকাদজা-চিগুম্বুরার ষষ্ঠ উইকেট জুটির কল্যাণে যোগ করে ১২৪ রান। কিন্তু সাইফ চিগুম্বুরাকে ফিরিয়ে এই জুটি ভাঙার পর তাসের ঘরের মতো ঝরে পড়ে তাদের ইনিংস।


বিসিবি একাদশের পক্ষে বাকি উইকেট দুটি নেন মোহর শেখ ও ইমরান আলী।


সংক্ষিপ্ত স্কোর :


জিম্বাবুইয়ানস : ১৭৮ (৪৫.২ ওভার) (হ্যামিল্টন ১০২, আরভিন ১, টেইলর ৬, উইলিয়ামস ১, সিকান্দার ৯, মুর ৪, চিগুম্বুরা ৪৭, মুসাকান্দা ০, মাভুতা ০, তিরিপানো ৩, ওয়েলিংটন ০*। এবাদত ৫/১৯, সাইফ ৩/৩২, মোহর ১/১৮, সৌম্য ০/৯, ইমরান ১/২৮, নাঈম ০/৩২, আরিফুল ০/১৪, মোসাদ্দেক ০/১৩, আফিফ ০/১৩)


বিসিবি একাদশ : ১৮১/২ (৩৯ ওভারে) (মিজানুর ৮, ফজলে ১৩, সৌম্য ১০২*, মোসাদ্দেক আহত অবসর ৩৩, আরিফুল ৯*। জার্ভিস ০/৯, চাতারা ০/২৪, সিকান্দার ১/২১, এনগারাভা ০/২৫, তিরিপানো ০/১৭, মাভুতা ০/২৬, উইলিয়ামস ০/২০, নইয়ুম্বু ০/২৭, ওয়েলিংটন ০/৬)


বিবার্তা/সোহান

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com