হিলিতে আমদানিকৃত তাল মিছরি হয়ে গেলো ভারতীয় কাপড়
প্রকাশ : ১১ মে ২০২১, ২৩:০৪
হিলিতে আমদানিকৃত তাল মিছরি হয়ে গেলো ভারতীয় কাপড়
হিলি (দিনাজপুর) প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দরে অবৈধ ভাবে খাদ্য পণ্য তাল মিছরির (এল,সি) কাগজে ভারতীয় কাপড় ও ফেব্রিক্স আমদানি করা হয়েছে।


জানাগেছে, ঢাকার এস এন ট্রেডিং কোম্পানি আমদানি কারক প্রতিষ্ঠান ভারতের পশ্চিমবঙ্গের এস এস ইন্টারন্যাশনালের নিকট এলসির মাধ্যমে সরকারি রাজস্ব তিন লাখ ৫৯ হাজার ৫৮১ টাকা পরিশোধ করে আমদানিকৃত তাল মিছরির ট্রাক গত শনিবার (৮মে) হিলি স্থলবন্দরের ভিতরে প্রবেশ করে। সি এন্ড এফ এজেন্ট হিসাবে নাম দেয়া আছে হিলি স্থলবন্দরে অবস্থিত জেস ইন্টারন্যাশনাল।


পরর্বতীতে হিলি কাস্টমস’র যাবতীয় কার্যক্রম সম্পূর্ণ করে পরের দিন (৯ মে) রবিবার বাংলাদেশী দুটি ট্রাক ( ঢাকা মেট্রো ট-১৫-৪৭৬১ এবং ঢাকা মেট্রো ট -১৫-৫৯৭০) করে আমদানিকৃত তাল মিছরি গুলো বন্দর ত্যাগ করলে ওই দিন বিকেলে বন্দর গেটের সামনে হাকিমপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোহাম্মদ নূর- এ আলম ট্রাঙ্ক ফোর্স এর যৌথ অভিযান চালিয়ে তাল মিছরির ট্রাক থেকে বিপুল পরিমাণ ভারতীয় শাড়ি, লুঙ্গি, ওড়না, থ্রি পিচ ও ফেব্রিক্স জব্দ করেন। জব্দকৃত পণ্য গুলোর মোট ওজন প্রায় ১৭ মেঃটন।


খাদ্য পণ্য তাল মিছরির কাগজে ( এল সিতে) ভারতীয় কাপড় ও ফেব্রিক্স আমদানি করায় সরকারি রাজস্ব কত টাকা ফাঁকি দেয়া হয়েছে এবিষয়ে বিস্তারিত জানতে হিলি কাস্টমস এর সহকারী কমিশনার (এসি) সাইদুল আলমের সাথে মুঠোফোনে (০১৯১১১২২৬৭৩) এই নম্বরে বার বার যোগাযোগের চেষ্টা করে উনাকে পাওয়া যায়নি।


এবিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোহাম্মদ নুর-এ আলম বলেন, হাকিমপুর, হিলির গোয়েন্দা সংস্থা (এনএসআই) এর গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানতে পারি এক শ্রেণির অসাধু ব্যবসায়ী সরকারি রাজস্ব ফাঁকি দিয়ে তালমিশ্রির কাগজে ভারত থেকে অবৈধ ভাবে ভারতীয় কাপড় বন্দরে এনেছে। এমন সংবাদের ভিত্তিতে অদ্য হাকিমপুর থানা পুলিশকে সঙ্গে নিয়ে বন্দর গেটে অভিযান পরিচালনা করি। অভিযান চালিয়ে দুইটি দেশি ট্রাককে আটক করি। পরে ট্রাক দুটি তল্লাশি করে দেখা যায় উপরে কিছু তালমিশ্রি, ভিতরে ফেব্রিক্স।


তিনি আরো জানান, ট্রাক দুইটি পুলিশের হেফাজতে দেয়া হয়েছে। পণ্যগুলোর আসল মালিক কে এবং কারা এই কাজের সাথে জরিত আছে, তা তদন্ত করে দোষীদের আইনের আওতায় আনা হবে।


পুলিশের হেফাজতে দেয়া দুইটি ট্রাকের মালামাল গুলো হাকিমপুর থানার ওসি ফেরদৌস ওয়াহিদের নেতৃত্বে গননা ও বাছাই প্রক্রিয়া শেষ করেন।


আজ (১১ মে) মঙ্গলবার সাড়ে ৪টায় থানা প্রেস রিলিজ এর মাধ্যমে জানান, আটককৃত ট্রাকে প্যাকেটের ভিতরে ভারতীয় শাড়ি-২২০৪ পিস, ওড়না-৪০৩৩ পিস, লুঙ্গী-১৮১২ পিস, পাঞ্জাবি-১২২ পিস, ব্রা-১৮২৪ পিস, থ্রি পিস-১৮০ পিস, জিলেট রেজার-১৮ পিস, তালমিছিরি-৪৭০ পিস, ঔষধ (ইনজেকশন)-৩৭০০ পিস, শার্ট-৫১ পিস।


জব্দকৃত মালামাল গুলোর বাজার মূল্য ধরা হয়েছে আনুমানিক ৮৬ লাখ ৩০ লাখ ৩০০ টাকা এবং আটক দুটি ট্রাকের উদ্ধার মূল্য ধরা হয়েছে অনুমানিক- ৪০ লাখ টাকা। দুইটি ট্রাকসহ জব্দকৃত মালামাল গুলোর সর্বমোট উদ্ধার মূল্য ধরা হয়েছে -১ কোটি ২৬ লাখ ৩০ হাজার ৩০০ টাকা। এই ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন বলে জানান পুলিশ।


হিলি স্থলবন্দরের আমদানি-রফতানি কারক গ্রুপের সভাপতি হারুন উর রশিদ হারুন বলেন, কিছু অসাধু ব্যবসায়ী অবৈধভাবে পণ্য আমদানি করায় সরকারের রাজস্ব ফাঁকির পাশাপাশি বন্দরের সুনাম নষ্ট হচ্ছে। এই কাজের সাথে যারা জড়িত তাদের আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান তিনি।


বিবার্তা/রব্বানী/জাই

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com