সাক্ষাতকার
রাজনৈতিক দলের পদ টাকায় বিক্রি হয়: সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি
প্রকাশ : ০৭ জুলাই ২০২২, ২০:১৯
রাজনৈতিক দলের পদ টাকায় বিক্রি হয়: সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি
কিরণ শেখ
প্রিন্ট অ-অ+

সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি। বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের দলগুলোর মধ্যে অন্যতম দল ডেমোক্রেটিক লীগের (ডিএল) সাধারণ সম্পাদক এবং জোটের অন্যতম শীর্ষ নেতা। জোটের নীতি-নির্ধারণের ক্ষেত্রেও তিনি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছেন।


দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন, বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট এবং ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনসহ নানা বিষয়ে বিবার্তা২৪ডটনেটের সঙ্গে কথা বলেছেন সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি। সাক্ষাৎকারটি নিয়েছেন বিবার্তা প্রতিবেদক কিরণ শেখ।


বিবার্তা: বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোটের ভবিষ্যৎ কি, এই জোট থাকবে না কি ভেঙে দেয়া হবে?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: বিএনপি নেতৃত্বাধীন ২০ দলীয় জোট ভেঙে দেয়া হবে, এমন কিছু না। ২০ দলীয় জোট আছে। তবে এখন কিছু কার্যক্রম কমেছে, আর অবস্থারও পরিবর্তন হয়েছে। কিন্তু বিএনপির সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক ভালো। তারা যদি সামনে আন্দোলন করে, সেই আন্দোলনে আমরা থাকবো। এই আন্দোলনে ২০ দলীয় জোটের শরীক দলগুলোর কোন পরীক্ষা দেয়ার দরকার নেই। কারণ আমরা সব সময়ই আন্দোলন করেছি। কোন সময়ই বেঈমানী করি নাই। জেলে গিয়েছি। আর এরশাদ ও শেখ হাসিনার সঙ্গেও যাইনি। আমরা রাজপথে আছি। আর বিএনপি'র সঙ্গে আমরা সব সময়ই আছি এবং থাকব।


বিবার্তা: রাজনৈতিক অঙ্গনে গুঞ্জন রয়েছে যে, জামায়াতকে ২০ দলীয় জোট থেকে বের করে দেয়া হবে- এর সত্যতা কতটুকু?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: ১৯৯৭ সালে আমরা বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার কাছে গিয়েছিলাম। অলি আহাদ এবং খায়রুল কবির খোকনসহ আরো কয়েকজন ওই সময় আমাদের সঙ্গে ছিলেন। তখন বেগম খালেদা জিয়া স্পষ্ট না করেছেন যে, জামায়াতকে জোটে রাখবো না। পরবর্তীতে যখন ৭ দলীয় জোট হয় সেখানে জামায়াত ছিলো। সুতরাং জামায়াতের সঙ্গে বিএনপির কি লিয়াজো- সে বিষয়ে মন্তব্য করা খুবই কঠিন।


বিবার্তা: ২০ দলীয় জোটের বাইরে বিএনপি বৃহত্তর ঐক্য করতে কাজ শুরু করছে, এই ঐক্য নিয়ে কি দলটি আপনাদের সঙ্গে কথা বলেছে?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: বৃহত্তর ঐক্য করার জন্য অনেক দলের সঙ্গে লিয়াজো করেছি। তাদেরকে (বিএনপি) আমরা সহযোগিতা করছি। বিভিন্ন জায়গায় আমরা যাচ্ছি। অনেক বাম নেতাদের সঙ্গেও এ বিষয়ে আলোচনা করেছি। এর সঙ্গে আমরা সম্পৃক্ত আছি।


বিবার্তা: বৃহত্তর ঐক্য নিয়ে বিএনপির সঙ্গে আপনাদের সংলাপ কবে?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: বৃহত্তর ঐক্য নিয়ে সংলাপ হবে। কিন্তু আমাদের সঙ্গে সংলাপের প্রয়োজন আছে বলে মনে করি না। কারণ আমরা ১৮ দলীয় জোট করেছি। আর আমরা অঙ্গীকার করেছি, শেখ হাসিনা না যাওয়া পর্যন্ত রাজপথে থাকবো। তাই আমাদের সঙ্গে সংলাপ হওয়ার প্রয়োজন আছে বলে আমি মনে করি না। কারণ আমরা কোন বেঈমানী, বিশ্বাসঘাতকতা করি নাই।


বিবার্তা: দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন নিয়ে আপনার দলের অবস্থান কি?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: আমরা কোন শক্তিশালী রাজনৈতিক দল না। তবে আমাদের ঐতিহ্য আছে। আর আগামী নির্বাচন নিয়ে আমরা ভাবি না। কারণ নির্বাচনের মাধ্যমে সরকার পরিবর্তন হবে না। আর নির্বাচন কমিশন কুমিল্লা সিটি করপোরেশনে নির্বাচনে যে খেলা দেখিয়েছে, এর মাধ্যমে বুঝা গেছে- রাজপথে যদি সরকারের পরিবর্তন করা না যায় তাহলে নির্বাচনে বিজয়ী হওয়া যাবে না। এই নির্বাচনে বিরোধী দলের কেউ পাসও করতে পারবে না। সরকার যাকে পাস করাবে সেই পাস করবে। সুতরাং এই নির্বাচনে আমরা যাবো না।


বিবার্তা: ইভিএম নিয়ে রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে মতবিনিময় সভা করছে নির্বাচন কমিশন, এ বিষয়ে আপনার মতামত কি?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: নির্বাচন কমিশন তো মূল জিনিসটাই করে না। আর আমরা ইভিএম এর পুরোপুরি বিরোধী। কারণ ইভিএম হলো বাটপারি মেশিন।


বিবার্তা: প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী হাবিবুল আউয়াল বলেছেন, রাজনৈতিক দলগুলোর সঙ্গে মতবিনিময় সভায় আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহারের বিপক্ষেই বেশি কথা হয়েছে, এ বিষয়ে আপনাদের অবস্থান কি?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: আমরা নিবন্ধিত দল না। আর আমার ভোট আমি দেব, যাকে খুশি তাকে দেব। কিন্তু ইভিএম বলবে আমার ভোট আমি দেব, যাকে খুশি তাকে দেব- আমি যাকে জেতাব সেই জিতবে। সেটা কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে প্রমাণ হয়েছে। সুতরাং ইভিএম হলো বোগাস জিনিসি।


বিবার্তা: ডেমোক্রেটিক লীগকে নিয়ে আপনার ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা কি?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: ডেমোক্রেটিক লীগকে নিয়ে আমরা চেষ্টা করছি। অনেকের সঙ্গে আলোচনাও হচ্ছে। এখন আর পলিটিক্যাল পার্টি নাই। সব তো বাণিজ্যিক রাজনৈতিক দল। দেশে রাজনৈতিক দল বিলুপ্ত হয়ে গেছে। নির্বাচনে দুই কোটি টাকায় মার্কা কিনে পাঁচ কোটি টাকাতে ভোটার কিনে এমপি হতে হয়। দলের পদও কিনতে হয়। বড় দলের পদগুলো টাকায় বিক্রি হয়। আর ছোট-খাটো দল তো কেউ করতে চায় না। আমরা অস্তিত্ব রক্ষায় জন্য কিছু লোক নিয়ে দল করি। কারণ ছাত্র রাজনীতি করে এসেছি।


বিবার্তা: কেমন বাংলাদেশ দেখতে চান?


সাইফুদ্দিন আহমেদ মনি: আগামীর বাংলাদেশ অবশ্যই ভালো হবে। আমরা না পারলেও এক সময় বাংলাদেশের মানুষ দুর্নীতির বিরুদ্ধে জেগে উঠবে। আর রাজনীতিটা দুর্নীতি মুক্ত হলেই সব কিছুই দুর্নীতি মুক্ত হবে।


বিবার্তা/কিরণ/রোমেল/জেএইচ


সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com