ইভ্যালিতে ১০০০ কোটি টাকা বিনিয়োগ চুক্তি যমুনা গ্রুপের
প্রকাশ : ২৮ জুলাই ২০২১, ০৮:৪৯
ইভ্যালিতে ১০০০ কোটি টাকা বিনিয়োগ চুক্তি যমুনা গ্রুপের
নিজস্ব প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

আলোচিত ই-কমার্স প্ল্যাটফর্ম ইভ্যালিতে এক হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে আরেক দেশি শিল্প প্রতিষ্ঠান যমুনা গ্রুপ। তবে প্রাথমিক বিনিয়োগ দুই শ' কোটি টাকা করা হবে বলে মঙ্গলবার (২৭ জুলাই) ইভ্যালির এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে। এরপর ধারাবাহিকভাবে বিভিন্ন পর্যায়ে মোট এক হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করবে গ্রুপটি।


তবে সাম্প্রতিক সময়ে বিভিন্ন কারণে আলোচনায় থাকা ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানটির বাজার মূল্য প্রকাশ করেনি কোনো পক্ষ। এই বিনিয়োগকে স্বাগত জানিয়ে ইভ্যালির প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ রাসেল জানান, একটি দেশীয় উদ্যোগ হিসেবে আরেকটি দেশীয় প্রতিষ্ঠানকে পেয়ে তারা সত্যিই আনন্দিত। মোহাম্মদ রাসেল বলেন, যমুনার এই বিনিয়োগ ধারাবাহিক বিনিয়োগের অংশ এবং পরবর্তী ধাপেও তাদের বিনিয়োগের সুযোগ রয়েছে। এই বিনিয়োগ ইভ্যালির ভবিষ্যত উন্নয়ন এবং ব্যবসা পরিধি বৃদ্ধিতে ব্যয় করা হবে।


গ্রাহকদের কাছ থেকে অগ্রিম অর্থ নিয়ে যথাসময়ে পণ্য সরবরাহ না করা কিংবা অর্থ ফেরত (রিফান্ড) না দেওয়া এবং পণ্য সরবরাহকারী মার্চেন্টদের বকেয়া পরিশোধ না করায় বাণিজ্য মন্ত্রণালয় ইভ্যালির বিষয়ে বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয় সাম্প্রতিক সময়ে।


এর মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংককে তদন্তও চালাতে অনুরোধ করাসহ অংশীজনদের নিয়ে বৈঠক, এনবিআর ও দুদকসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানকে ইভ্যালির কার্যক্রম খতিয়ে দেখতে চিঠি দেওয়াসহ ই-কমার্স প্ল্যাটফর্মটিকেও নোটিস দিয়েছে। এমন প্রেক্ষাপটে মঙ্গলবার ইভ্যালি বিনিয়োগ পাওয়ার ঘোষণা দিল।


দিন কয়েকদিন আগে ফেসবুকে লাইভে এসে ইভ্যালির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোহাম্মদ রাসেল বলেছিলেন, গ্রাহকের পুরোনো অর্ডারবাবদ যেসব মূল্য ফেরত প্রক্রিয়া চলছিল তা স্থগিত রাখা হবে। নতুন নিয়মে গ্রাহকদের হাতে পণ্যই তুলে দেবেন তিনি। নতুন বিনিয়োগের আশ্বাস পেয়ে এবিষয়ে তিনি বলেন, পুরানো অর্ডার যেগুলো পেন্ডিং সেগুলোর ডেলিভারির ব্যাপারে আমরা সর্বোচ্চ প্রায়োরিটি দিচ্ছি, প্রয়োজনে আমরা আরও বিনিয়োগের ব্যবস্থা করব।


বিনিয়োগ নিয়ে যমুনা গ্রুপের ব্যবস্থাপনা পরিচালক শামীম ইসলামের বরাত দিয়ে ইভ্যালির বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, বিশ্বের বিভিন্ন দেশের উন্নয়নে আমরা দেখছি যে, স্থানীয় ই-কমার্স প্রতিষ্ঠানগুলো দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখছে। যেমন যুক্তরাষ্ট্রের ক্ষেত্রে আমাজন, চীনের ক্ষেত্রে আলিবাবা। তেমনি বাংলাদেশে ইতোমধ্যে নিজের একটি অবস্থান তৈরি করেছে দেশীয় ই-কমার্স ইভ্যালি। শুধু দেশের সাধারণ মানুষের স্বপ্নপূরণে কাজ করে যাচ্ছে। যমুনা গ্রুপ দীর্ঘ ৫০ বছর ধরে দেশ ও দেশের জনগণের কল্যাণে কাজ করছে। এখন থেকে ইভ্যালি এবং যমুনা গ্রুপ সেই স্বপ্নপূরণে একে অপরের অংশীদার হলো।


বিজ্ঞপ্তিতে যমুনা গ্রুপের পরিচালক মনিকা ইসলামের একটি বক্তব্যও তুলে ধরা হয়। মনিকা ইসলাম বলেন, দেশের বাজারে মানসম্পন্ন পণ্য ও সেবা নিয়ে যমুনা গ্রুপ ব্যবসা করে আসছে। বাংলাদেশে সব থেকে বড় অফলাইন মার্কেটপ্লেস যমুনা ফিউচার পার্ক। আর এখন সবচেয়ে বড় অনলাইন মার্কেটপ্লেস গড়ে তোলার জন্য ইভ্যালির সাথে থাকবে যমুনা। তিনি বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ এবং দেশের ই-কমার্স খাতকে একটা মজবুত অবস্থানে এগিয়ে নিয়ে যেতে ইভ্যালির সৎ ব্যবসায়িক উদ্দেশ্যের প্রতি বিশ্বাস রেখে তাদের দুঃসময়ে আমরা পাশে এসে দাঁড়িয়েছি।


বিবার্তা/বিআর

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com