যাত্রাবাড়ীতে গলায় ফাঁস দিয়ে ২ শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা
প্রকাশ : ২৪ অক্টোবর ২০২২, ১০:৫৯
যাত্রাবাড়ীতে গলায় ফাঁস দিয়ে ২ শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

রাজধানীর যাত্রাবাড়ী মাতূয়াইলের একটি বাসায় সিলিং ফ‍্যানের সাথে গলায় উর্না পেঁচিয়ে জেরিন আক্তার (১৬) নামের এক মাদ্রাসা শিক্ষার্থী আত্মহত্যা করেছেন।


রবিবার (২৩ অক্টোবর) বিকেল পাঁচটার দিকে এ ঘটনাটি ঘটে। তাকে অচেতন অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল নিয়ে আসলে চিকিৎসক রাত সাড়ে ৭ টার দিকে জেরিনকে মৃত্যু ঘোষণা করেন।


মৃত জেরিন আক্তার পিরোজপুর জেলার নেছারাবাদ উপজেলার হেমায়েত উদ্দিনের মেয়ে। বর্তমানে যাত্রাবাড়ী কাঠেরপুল মাতুয়াইল কোনাপাড়া নানা শাহাবুদ্দিনের বাড়িতে সপরিবারে থাকতেন। দুই ভাই দুই বোনের মধ্যে সে ছিল তৃতীয়। জেরিন আক্তার মাতুয়াইল ইসলামিয়া মাদ্রাসার অষ্টম শ্রেণীর শিক্ষার্থী ছিলেন।


মৃত শিক্ষার্থীকে নিয়ে আসা তার ফুফাতো ভাই মীরাজুল ইসলাম বিবার্তাকে বলেন, পরীক্ষায় রেজাল্ট খারাপ করায় তার মা বকাঝকা করে। এতে মায়ের ওপর অভিমান করে নিজ বাসায় ফ্যানের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে ফাঁসি দেয়। পরে দরজা ধাক্কা দিয়ে ডাকাডাকি করলে কোন সাড়াশব্দ না পেয়ে জানলার ফাঁক দিয়ে দেখি জেরিন ফ্যানের সাথে ঝুলছে, দরজা ভেঙ্গে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল নিয়ে আসার পর চিকিৎসক তাকে মৃত বলে জানান।


তিনি আরো বলেন, জেরিনদের ছোট রেখে বাবা অন্যত্রে চলে যায়। মা কষ্টকরে সংসারের হাল ধরে এবং ছেলে মেয়েদের লেখাপড়া করাচ্ছেন।


অন্যদিকে, যাত্রাবাড়ী ওয়াসারোডে মা-বাবার সাথে অভিমান করে শিশু শিক্ষার্থী মুনিয়া আক্তার মুন্নি (১০ ) গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে।


রবিবার (২৩ অক্টোবর) রাত সাড়ে ১০ টায় দিকে এ ঘটনাটি ঘটে। স্বজনরা তাকে অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিয়ে আসলে চিকিৎসক রাত সাড়ে ১১ টায় শিশুটিকে মৃত্যু ঘোষণা করেন।


মৃত মুনিয়া আক্তার মুন্নি বরিশাল জেলা সদর হায়াত স্যার ছোট গ্রামের মোলিউদ্দিনের কন্যা। বর্তমানে ১৫২/২ পশ্চিম যাত্রাবাড়ী ওয়াসা রোড পরিবারের সাথে থাকতো। দুই বোন এক ভাইয়ের মধ্যে সে ছিল ছোট। যাত্রাবাড়ী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের তৃতীয় শ্রেণীর শিক্ষার্থী ছিল মুনিয়া।


মৃত শিশুর বাবা মোহাম্মদ মোসলেউদ্দিন বিবার্তাকে বলেন, সন্ধ্যার দিকে পড়ালেখা নিয়ে আমার মেয়েকে বকাঝকা করি, এরপর থেকে সে অভিমান করেছিল, রাতে খাবারের জন্য তাকে ডাকি সে খাবেনা বলে জানায়। পরে আমরা খেতে বসেছি তখন বাথরুমের দরজার বিকট শব্দ পেয়ে দৌড়ে যেয়ে দেখি বাথরুমের দরজা বন্ধ। কোন সাড়াশব্দ না পেয়ে দরজা ভেঙে দেখি আমার মেয়ে বাথরুমের গ্রিলের সাথে ওড়না পেঁচিয়ে বসা অবস্থায়। সঙ্গে সঙ্গে তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল নিয়ে আসলে চিকিৎসক আমার মেয়েকে মৃত বলে জানান


ঢামেক পুলিশ ক‍্যাম্পের ইনচার্জ (পরিদর্শক ) মো বাচ্চু মিয়া বিবার্তাকে বলেন, যাত্রাবাড়ীতে দুইজন শিক্ষার্থী গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল মর্গে রাখা হয়েছে। বিষয়টি যাত্রাবাড়ী থানাকে অবগত করা হয়েছে।


বিবার্তা/বিএম

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com