চলছে অপারেশন ‘গর্ডিয়ান নট’
প্রকাশ : ১৬ অক্টোবর ২০১৮, ১৪:৪৪
চলছে অপারেশন ‘গর্ডিয়ান নট’
নরসিংদী প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

নরসিংদীর শেখেরচরের ভগীরথপুরে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে কাপড় ব্যবসায়ী বিল্লাল হোসেনের পাঁচতলা বাড়িতে সোয়াট টিমের অভিযান চলছে। অভিযানের নাম দেওয়া হয়েছে ‘গর্ডিয়ান নট’।


বাড়িটি থেকে সকাল সাড়ে ১১টা থেকে প্রায় এক ঘণ্টা দফায় দফায় গুলির শব্দ পাওয়া গেছে। দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে ঘটনাস্থল পরিদর্শনে যান পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. জাবেদ পাটোয়ারী। তখনও গুলি শব্দ শোনা যায়।


পরিদর্শন শেষে আইজিপি সাংবাদিকদের জানান, ‘নরসিংদীর শেখেরচরের জঙ্গি আস্তানায় অভিযানের নাম দেওয়া হয়েছে ‘গর্ডিয়ান নট’। নিয়ম অনুযায়ী সেখানে অপারেশন পরিচলানা করা হচ্ছে। তাদের প্রথমে আত্মসমর্পণের আহবান জানানো হয়। এতে সাড়া না পাওয়া প্রথমে টিয়ারশেল ও পরে গুলিবর্ষণ করা হয়। এ সময় তারাও পাল্টা গুলি করে।’


জাবেদ পাটোয়ারী বলেন, ‘তাদের কাছে কী ধরনের অস্ত্র রয়েছে তা সম্পর্কে ধারণা রয়েছে। তবে এখনই আমরা তা প্রচার করতে পারছি না। আস্তানায় ঠিক কতজন আছে তা এখনও বলা যাচ্ছে না। অপারেশন শেষ হলে বলা যাবে। অপারেশন শেষ হতে আরও সময় লাগবে।’


এর আগে মঙ্গলবার সকাল ১০টা ১০ মিনিটে ঢাকা থেকে কাউন্টার টেররিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) ইউনিটের প্রধান মনিরুল ইসলাম ওই এলাকায় পৌঁছান। তারপরই সোয়াটের টিম অভিযান শুরু করে।


মনিরুল ইসলাম গণমাধ্যমকর্মীদের জানন, 'একাধিক জঙ্গি আছে সে বিষয়ে আমরা নিশ্চিত হয়েছি। তাদের কাছে কী ধরনের অস্ত্র বা বিস্ফোরক থাকতে পারে, সে বিষয়ে আমাদের একটি ধারণা আছে।'


ঢাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত এই কমিশনার বলেন, সোয়াট অভিযান চালাবে। তার আগে আমরা চেষ্টা করছি নেগোশিয়েট করার, যাতে তারা আত্মসমর্পণ করে। আশপাশের লোকজনের যাতে ক্ষতি না হয়, সে বিষয়ে আমরা সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিচ্ছি।


এদিকে মাধবদী পৌরসভার গাংপাড় এলাকার আফজাল হাজীর ‘নিলুফা ভিলা’ নামে একটি ভবনও জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে ঘিরে রেখেছে পুলিশ। বিল্লাল মিয়ার বাড়িতে অভিযান শেষে সেখানে অভিযান শুরু হবে বলে জানিয়েছেন আইজিপি জাবেদ পাটোয়ারী।



ওই দুটি বাড়িতে নারী-পুরুষসহ অন্তত পাঁচ জঙ্গি রয়েছে বলে ধারণা পুলিশের। বাড়ি দুটির আশপাশের বাসিন্দাদের সরিয়ে নেয়ার পর ৫০০ গজের মধ্যে ১৪৪ ধারা জারি করেছে স্থানীয় প্রশাসন। মাইকিং করে কাউকে বের না হতে পরামর্শ দেয়া হচ্ছে।


পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিট ও র‌্যাব সদস্যরা এলাকা দুটি ঘিরে রেখেছেন। দুই জায়গাতেই উপস্থিত হয়েছে ফায়ার ব্রিগেডের গাড়ি ও চিকিৎসক দল।


নরসিংদীর পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল মামুন জানান, কাউন্টার টেররিজম ইউনিট ও পুলিশ সদর দফতরের ল ফুল ইন্টারসেপশন সেলের (এলআইসি) সদস্যরা সোমবার রাত ৯টার দিকে ওই বাড়ি দুটি ঘিরে ফেলেন। পরে র‌্যাব তাদের সঙ্গে যোগ দেয়। মঙ্গলবার ভোরে সোয়াট সদস্যরা ঘটনাস্থলে পৌঁছেন।


এর মধ্যে মাধবদী পৌরসভার ছোট গদাইরচরের সাত তলা নিলুফা ভিলার মালিক হাজী মো. আফজাল হোসেন নামে এক ব্যক্তি। ওই ভবনের পঞ্চম তলার একটি ফ্ল্যাটে জঙ্গিরা অবস্থান করছে বলে পুলিশের ধারণা। ভবনটির প্রথম থেকে তৃতীয় তলা পর্যন্ত রয়েছে মিফতাহুল জান্নাহ মহিলা মাদ্রাসা।


আর শেখেরচরের ভগীরথপুরের পাঁচ তলা বাড়িটির মালিক বিল্লাল হোসেন নামে এক কাপড় ব্যবসায়ী। ওই ভবনের পঞ্চম তলায় এক নারীসহ দুই জঙ্গি অবস্থান করছে বলে খবর রয়েছে পুলিশের কাছে। ভবনটির ছাদেও পুলিশ সদস্যদের অবস্থান নিতে দেখা গেছে।



ভগীরথপুরের বাড়িটি ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক থেকে দুশ মিটারের মধ্যে। সেখান থেকে মোটামুটি দুই কিলোমিটার দূরত্বে ছোট গদাইরচরের বাড়িটি। দুটি বাসাই এ মাসের ৭ তারিখে ভাড়া নেয়া হয়েছে বলে বাড়ির মালিকদের পক্ষ থেকে পুলিশকে জানানো হয়েছে।


আশপাশের বাসিন্দাদের সরিয়ে নেয়ার পর দুই বাড়ির গ্যাস ও বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়েছে। ফায়ার ব্রিগেডের গাড়ি রাখা হয়েছে দুই বাড়ির কাছাকাছি।


সকালে বোমা নিষ্ক্রিয়কারী দলের সদস্যদেরও সেখানে উপস্থিত হতে দেখা গেছে। পুলিশের ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি আবদুল্লাহ আল মামুন এবং নরসিংদীর সিভিল সার্জনও মাধবদীতে আছেন।


বিবার্তা/রাসেল/কামরুল


আরও পড়ুন- অভিযানের প্রস্তুতি সম্পন্ন, এলাকায় ১৪৪ ধারা জারি

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com