অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে তৈরি হচ্ছে টাইগার লেমন জুস
প্রকাশ : ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১০:২০
অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে তৈরি হচ্ছে টাইগার লেমন জুস
সাভার প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

সাভারের আশুলিয়ায় অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে একটি কারখানায় তৈরি করা হচ্ছে টাইগার লেমন জুসসহ নানা খাদ্যপণ্য। সেই খাদ্যপণ্য দোকান থেকে কিনে খেয়ে এলাকার অনেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েছেন। এ ঘটনার পর কারখানাটি বন্ধের দাবিতে এলাকাবাসী বিক্ষোভ মিছিল করেছে।


আশুলিয়ার আউকপাড়া এলাকায় গোপনে একটি টিনসেড ঘরে জি ফিফটি গ্রুপ নামের কোম্পানিটি অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে কারখানা গড়ে তুলেছে।



এলাকাবাসী জানায়, আশুলিয়ার আউকপাড়া গ্রামে উত্তরার শহিদুল ইসলাম নামে এক ব্যক্তি কোনো নিয়ম নিতির তোয়াক্কা না করেই ওই কারখানাটি গড়ে তুলেছে। কারখানাটিতে অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে জি ফিফটি লায়ন অ্যান্ড টাইগার, লেমন জুস ও স্পিডসহ বেশ কয়েকটি পণ্য তৈরি করে দেশের বিভিন্নস্থানে বাজারজাত করছে। ক্রেতারা সেই পণ্য খেয়ে নানা রোগে ভুগছেন। অস্বাস্থ্যকর ও নোংরা পরিবেশে বানানো এসব পণ্য ভোক্তারা না জেনে কিনে যেমন প্রতারিত হচ্ছে, তেমনি স্বাস্থ্য ঝুঁকিতেও রয়েছে হাজারো মানুষ।



সরেজমিনে কারখানাটিতে গিয়ে দেখা যায়, পণ্য তৈরিতে স্বাস্থ্যসম্মত কোনো পদ্ধতি গ্রহণ করছেন না কারখানার শ্রমিকরা। প্রচণ্ড গরমে শরীরের ঘাম বেয়ে পণ্যের উপরে পড়ছে। কারখানার মেঝেতে স্যাঁতস্যাঁতে অবস্থা। এমন অবস্থায় পণ্য তৈরি করছে শ্রমিকরা। সেই পণ্য গাড়িতে করে দেশের বিভিন্নস্থানে দোকানে বিক্রি করা হচ্ছে।



এদিকে সাংবাদিকদের উপস্থিতি টের পেয়ে কারখানা কর্তৃপক্ষ কারখানায় তালা ঝুলিয়ে গা ঢাকা দেয় পরে সাংবাদিকরা চলে গেলে কারখানা কর্তৃপক্ষ আবারো উৎপাদন শুরু করেন। বৃহস্পতিবার সকালে ওই কারখানাটির বিরুদ্ধে উপজেলা প্রশাসনকে ব্যবস্থা নিতে ওই কারখানার সামনে বিক্ষোভ মিছিল করেছে এলাকাবাসী। অবিলম্বে তারা কারখানাটি বন্ধের দাবি জানিয়েছেন।


এবিষয়ে কারখানাটির মালিক শহিদুল ইসলাম জানান, এমন নোংরা পরিবেশে পণ্য উৎপাদন করা হলেও এটি স্বাস্থ্যের জন্য ঝুঁকি না। এছাড়া আমি প্রশাসনের সাথে লিয়াজো করে সবাইকে ম্যানেজ করেই কারখানা পরিচালনা করে আসছি।



এব্যাপারে সাভার উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট শেখ রাসেল হাসান জানান, আমরা আগেই ঘোষণা দিয়েছি ভেজাল পণ্যের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করবো। সে লক্ষ্য প্রতিদিন ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালিত হচ্ছে। এ বিষয়ে এলাকাবাসীর কথা চিন্তা করে ওই কারখানার বিরুদ্ধে অচিরেই ব্যবস্থা নেয়া হবে।


বিবার্তা/শরীফুল/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com