রাজবাড়ীতে আবারো নারীকে গলাকেটে হত্যা
প্রকাশ : ১৭ আগস্ট ২০১৮, ১৫:৪৪
রাজবাড়ীতে আবারো নারীকে গলাকেটে হত্যা
রাজবাড়ী প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

রাজবাড়ীতে হাজেরা বেগম (৪৮) নামে আবারো এক নারীকে গলাকেটে হত্যা করেছে দুর্বৃত্তরা। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে সদর উপজেলার আলীপুর ইউনিয়নের বারবাকপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।


হাজেরা ওই গ্রামের তমিজউদ্দিনের স্ত্রী। এ নিয়ে গত ১৫ দিনে রাজবাড়ী সদরে চারটি গলাকেটে হত্যার ঘটনা ঘটলো। এর মধ্যে ৩জন নারী ও একজন শিশু।


নিহতের স্বামী তমিজউদ্দিন বলেন, আমার দুই ছেলে প্রবাসে থাকে। বাড়িতে আমি, আমার স্ত্রী, এক ছেলের বউ ও চার বছর বয়সী নাতী বসবাস করি। বৃহস্পতিবার দিনগত রাত ১০টার দিকে রাতের খাবার খেয়ে আমি আলাদা ঘরে ঘুমিয়ে পড়ি এবং আমার স্ত্রী, ছেলের বউ ও নাতী আরেকটি ঘরে ঘুমায়। রাত সাড়ে ১২টার দিকে ছেলের বউ স্বপ্নার চিৎকার করে ডাক দিলে আমার ঘুম ভাঙে। এসময় আমি ওই ঘরে গিয়ে দেখি খাটের ওপর আমার স্ত্রীর গলাকাটা মরদেহ পড়ে আছে এবং ছেলের বউ স্বপ্নার দুই হাতে কোপের চিহ্ন রয়েছে।


তিনি আরো বলেন, আমার কারো সঙ্গে কোনো শত্রুতা নেই। এ ঘটনা কারা ঘটিয়েছে তা ধারনাও করতে পারছি না।


রাজবাড়ী সদর থানার ওসি (তদন্ত) আব্দুল্লাহ আল তায়াবীর জানান, মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য রাজবাড়ী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য নিহতের ছেলের বউ স্বপ্নাকে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। ঘটনার সঙ্গে জড়িতদের সনাক্তপূর্বক গ্রেফতারে পুলিশ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে।


উল্লেখ্য, গত ৩ আগস্ট সদর উপজেলার মুলঘর ইউনিয়নের পশ্চিম মুলঘর গ্রামে নিজ বসতঘর থেকে দাদি ও নাতনির গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ছাড়া ৮ আগস্ট বানীবহ ইউনিয়নরে আটদাপুনিয়া গ্রামে নিজ বসতঘর থেকে এক গৃহবধূর গলাকাটা মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এ তিনটি হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় থানায় পৃথক মামলা হয়েছে। পুলিশ কয়েকজনকে আটক করলেও হত্যার কারণ উদঘাটন করতে পারেনি। তিনটি হত্যাকান্ডের রেষ কাটতে না কাটতেই একইভাবে আরো একটি হত্যার ঘটনা ঘটলো। এতে জনমনে আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে।


বিবার্তা/শিহাব/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com