এমসি কলেজে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ: পেছাল সাক্ষ্যগ্রহণ
প্রকাশ : ২৪ জানুয়ারি ২০২১, ২০:৪৮
এমসি কলেজে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ: পেছাল সাক্ষ্যগ্রহণ
সিলেট প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

সিলেটের এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে গৃহবধূ ধর্ষণ মামলার সাক্ষ্যগ্রহণ হয়নি। রবিবার (২৪ জানুয়ারি) এ মামলায় সাক্ষ্যগ্রহণের তারিখ নির্ধারণ করা হয়ে থাকলেও বাদীপক্ষের আইনজীবী আদালতে দাখিলকৃত ধর্ষণ ও চাঁদাবাজির পৃথক অভিযোগপত্রের শুনানি একই দিনে চলমান রাখতে আবেদন (পিটিশন) দাখিল করেন।


সিলেটের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. মোহিতুল হক এ আবেদন না মঞ্জুর করে মামলার সাক্ষ্যগ্রহণের জন্য আগামী বুধবার (২৭ জানুয়ারি) নতুন করে তারিখ নির্ধারণ করেন।


রবিবার সকাল সাড়ে ১১টায় আসামিদের উপস্থিতিতে আদালত এই আদেশ দেন। আলোচিত এই ঘটনায় এদিন সাক্ষ্যগ্রহণের কথা ছিল। এর আগে সকালে কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে দিয়ে ৮ আসামিকে আদালতে হাজির করা হয়।


আদালত সূত্র জানায়,আজ এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে ধর্ষণ মামলার সাক্ষ্যগ্রহণের কথা ছিল। তবে আলোচিত এই ঘটনায় শাহপরাণ থানা পুলিশ ৮ জনকে অভিযুক্ত করে পৃথক দুটি অভিযোগপত্র দাখিল করে। এরমধ্যে একটি চাঁদাবাজি ও অন্যটি ধর্ষণের ঘটনায়। দুটি অভিযোগপত্রে আসামিরা একই। ধর্ষণ মামলার সব কার্যক্রম শুরু হলেও চাঁদাবাজির দাখিলকৃত অভিযোগপত্রের কার্যক্রম এখনও শুরু হয়নি।


বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সিরাজুল ইসলাম বলেন, এমসি কলেজের ঘটনায় আদালতে পৃথক দুটি অভিযোগপত্র (চাঁদাবাজি ও ধর্ষণ) দাখিল করে পুলিশ। এই দুটি অভিযোগপত্রে আসামিরাও একই। একইদিন আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে পুলিশ। দুটি অভিযোগপত্রের বিচার দ্রুত হওয়ার জন্য আমরা ধর্ষণ মামলার অভিযোগপত্রের সঙ্গে চাঁদাবাজি অভিযোগপত্রের কার্যক্রম একই আদালতে চলার জন্য পিটিশন দাখিল করলে আদালত তা না মঞ্জুর করেন। পিটিশন দাখিল করায় আদালতে আমরা সাক্ষী হাজির করিনি। আগামী তারিখে আমরা আলোচনা করে পরবর্তী করণীয় নির্ধারণ করবো।


বিবার্তা/এসএ

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com