টাঙ্গাইলে বিয়ের একদিন পরই লাশ হলো নববধূ
প্রকাশ : ২০ জানুয়ারি ২০২১, ২২:০০
টাঙ্গাইলে বিয়ের একদিন পরই লাশ হলো নববধূ
টাঙ্গাইল প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

বিয়ের একদিন পরই বধূ হয়ে স্বামীর বাড়িতে এসে লাশ হয়ে ফিরলো তন্বী নামের এক কলেজ ছাত্রী। দীর্ঘ দিনের প্রেমের সম্পর্ক বিয়েতে গড়ালেও বিয়ের পরের দিনই অজানা কারণে স্বামীর বাড়িতে ফাঁসিতে ঝুলে আত্মহত্যা করেছে স্থানীয় জোবেদা রুবেয়া সরকারি মহিলা কলেজের শিক্ষার্থী জান্নাতুল রুবাইয়াত তন্বী (২১)।


বুধবার (২০ জানুয়ারি) স্বামী সাইমের বাড়িতে নিজের শোবার ঘরের সিলিং ফ্যানের সাথে শাঁড়ি পেচিয়ে আত্মহত্যা করে সে।


নিহত তন্বী টাঙ্গাইলের বাসাইল পৌরসভার জরাশাহীবাগ এলাকার অগ্রণী ব্যাংকের সাবেক ব্যাবস্থাপক হাশেম খানশুর এবং বাসাইল সদর ইউনিয়নের সাবেক মহিলা মেম্বার বিউটি আক্তারের ছোট মেয়ে। তন্বীর স্বামী পৌর এলাকার পশ্চিমপাড়ার মৃত গিয়াসউদ্দিনের ছেলে সাদেক আহমেদ সাইম (৩৪)।


তন্বীর মৃত্যুর বিষয় নিয়ে উভয় পরিবার পরস্পর বিরোধী বক্তব্য দিয়েছেন।


জানা যায়,পাশাপাশি এলাকার বাসিন্দা হিসেবে সাইম এবং তন্বীর পরিবারের মধ্যে ভাল জানাশোনা রয়েছে। পারিবারিক সুসম্পর্ক এবং পরিচয়ের সুবাদে উভয়ের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে। সম্পর্কের বিষয়টি তন্বীর পরিবার জানার পর ভালভাবে গ্রহণ করেনি। বিভিন্ন জায়গা থেকে তন্বী এবং সায়েমের বিয়ের প্রস্তাব আসলেও উভয়েই অন্যত্র বিয়ে করতে রাজি হয়নি।


মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) দুই পরিবারের সম্মতিতে বিয়ে হয় তাদের। পরদিন শোবার ঘরে সিলিং ফ্যানের সাথে শাঁড়ি পেচিয়ে আত্মহত্যা করে সে।


তন্বীর দেবর শাকিল খান বলেন, ভাই-ভাবী উভয়েই বিয়ের বয়সের জন্য উপযুক্ত। স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিদের উপস্থিতিতে ভাবী (তন্বী)’র পরিবার বিয়ের কাবিনসহ অনুষ্ঠানিকতা শেষ করলেও মেয়ের প্রতি তারা নাখোশ ছিলেন।


বুধবার যখন ভাবী আমাকে এবং আমার ভাই সায়েমকে বাজার করতে পাঠান তখন তাকে খুব বিষন্ন লাগছিলো। ধারনা করা হচ্ছে সকালে তার বাবা মা’র সাথে মোবাইলে ঝগড়া করে আর রাগ ক্ষোভে আত্মহত্যা করেছেন।


তন্বীর বাবা হাশেম খানশুর বলেন, আমি নিজে উপস্থিত থেকে বিয়ের কাজ সম্পন্ন করেছি। বিয়ের মাত্র একরাতের মাথায় মেয়ের মৃত্যুর ঘটনা সত্যিই মর্মান্তিক এবং এটা স্বাভাবিক বলে মেনে নেয়া যায় না।


তিনি বলেন, আত্মহত্যার প্ররোচনায় আমার মেয়েকে প্ররোচিত করা হয়েছে বলে আমার বিশ্বাস। পোষ্টমর্টেম রিপোর্ট হাতে পেলে মামলার বিষয়ে এগিয়ে যাবো।


বাসাইল থানার ওসি হারুনুর রশিদ বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। বাসাইল থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা দায়ের হয়েছে।


বিবার্তা/তোফাজ্জল/জাই


সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com