ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা করায় সাক্ষীর বাড়িতে হামলার অভিযোগ
প্রকাশ : ০৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১৮:১০
ইউপি চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে মামলা করায় সাক্ষীর বাড়িতে হামলার অভিযোগ
লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার চররমনী মোহন ইউপি চেয়ারম্যান আবু ইউসুফ ছৈয়ালের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করায় ক্ষিপ্ত হয়ে মামলার সাক্ষীর বাড়িতে হামলা চালানোর অভিযোগ উঠেছে।


শুক্রবার (৪ ডিসেম্বর) দুপুর দেড়টার দিকে জেলা শহরের সোনালী কলোনীতে এ ঘটনা ঘটে।


হামলাকারীরা সাক্ষী আবুল কালাম আজাদের বাড়ির বিভিন্ন আসবাবপত্র ভাঙচুর করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরির্দশন করে। আবুল কালম পৌর ৬নং ওয়ার্ডের মৃত বশির উদ্দিন বাবুলের পুত্র।


জানা গেছে, লক্ষ্মীপুরের মজুচৌধুরীর হাট লঞ্চ ও ফেরীঘাট চলতি অর্থবছরের জন্য ইজারা নেয় ইউপি চেয়ারম্যান ছৈয়ালের ছেলে আবু সুফিয়ান ও সদর উপজেলা (পূর্ব) যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক রূপম হাওলাদার।


এরপর থেকে ইউপি চেয়ারম্যানের লোকজন ঘাট থেকে নিময় বহির্ভূতভাবে চাঁদা আদায় শুরু করে। এতে ঘাটে নৈরাজ্য সৃষ্টি হয়। এর বিরুদ্ধে যুবলীগ নেতা রূপম প্রতিবাদ করলে তার সাথে বিরোধ দেখা দেয় ইউপি চেয়ারম্যান ও তার পুত্রের সাথে। এ সব বিষয়ে সম্প্রতি যুবলীগ নেতা রূপম বাদি হয়ে লক্ষ্মীপুর আদালতে মামলা দায়ের করেন। মামলার ২নং সাক্ষী করা হয় আবুল কালাম আজাদ নামে এক ব্যক্তিকে।


এ ঘটনায় ক্ষিপ্ত হয়ে শুক্রবার দুপুরে চেয়ারম্যান ছৈয়াল ও তার ছেলের আবু সুফিয়ানের নেতৃত্বে ২০/২৫ জন লোক এসে আবুল কালামের ঘরে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরির্দশন করে। এর আগেই হামলাকারীরা ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।


আদালতে দায়েরকৃত মামলার বাদি যুবলীগ নেতা রূপম হাওলাদার জানান, মজুচৌধুরীর হাট ঘাটে চেয়ারম্যান ছৈয়ালের লোকজন অনৈতিকভাবে অর্থ আদায় করছে। আমি এগুলোর প্রতিবাদ করায় আমাকে ঘাটে ভিড়তে দেয় না। পরে আমি আদালতে মামলা করি। তাই ক্ষিপ্ত হয়ে চেয়ারম্যান ছৈয়াল সন্ত্রাসী বাহিনী দিয়ে মামলার স্বাক্ষীর বাড়িতে হামলা করেছে। এ ঘটনা আমি পুলিশকে অবহিত করি। অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান ছৈয়ালের বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।এ ব্যাপারে সদর থানার এসআই আবুল কালাম বলেন, উভয় পক্ষকে থানায় বসে মিমাংস্যা করতে বলা হয়েছে।


উল্লেখ্য, লক্ষ্মীপুরে মজুচৌধুরীর হাট লঞ্চ ও ফেরী ঘাটে টোল আদায়ের নামে লঞ্চ, নৌ-যান, ফেরী, যানবাহন ও যাত্রী এবং লক্ষ্মীপুর-মজুচৌধুরীর হাট সড়কে চলাচলকৃত যানবাহন থেকে টোলের নামে অতিরিক্ত টাকা আদায় করা হচ্ছে। অভিযোগ রয়েছে- এ সবের নেপথ্যে রয়েছে চররমনী মোহন ইউপি চেয়ারম্যান আবু ইউসুফ ছৈয়াল।


বিবার্তা/সুমন/এসএ

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com