করোনা প্রতিরোধে রিকশাচালকের ব্যতিক্রমী উদ্যোগ
প্রকাশ : ২৯ মার্চ ২০২০, ১৬:৩২
করোনা প্রতিরোধে রিকশাচালকের ব্যতিক্রমী উদ্যোগ
জয়পুরহাট প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

মহামারি করোনাভাইরাস সম্পর্কে সাধারণ মানুষদের মধ্যে সচেতনতা বাড়াতে একজন সাধারণ রিকশাচালক ব্যতিক্রমী উদ্যোগ হাতে নিয়েছেন।


শনিবার (২৮ মার্চ) রাতে জয়পুরহাট শহরের পাচুর মোড়ে আলমগীর হোসাইন নামে এই রিকশাচালককে দেখা যায়।


তিনি তার রিকশায় যাত্রী ওঠানোর আগে যাত্রীর মাস্ক আছে কী-না তা নিশ্চিত হচ্ছেন, তারপর যাত্রীর শরীরে জীবাণুনাশক স্প্রে ছিটিয়ে নিচ্ছেন। এরপরই তিনি রিকশায় যাত্রী নিয়ে গন্তব্যের উদ্দ্যেশে রওনা হচ্ছেন।


২২ বছর বয়সি আলমগীর টাকার অভাবে বেশিদূর লেখাপড়া করতে পারেননি। ছোটবেলা থেকে রিকশা চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করেন। তিনি পৌর শহরের ভেটি এলাকার আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে।


আমতলী থেকে শহরের পাচুর মোড়ে আসা কাজী আরিফুর রহমান ছোটন নামে এক যাত্রী জানান, আমতলী থেকে রিকশায় ওঠার আগে আলমগীর হোসাইন জিজ্ঞেস করেন, মাস্ক আছে কী-না? মুখে মাস্ক থাকলে নিয়ে যাবেন বলে জানান। মাস্ক মুখে দেয়ার পর তার শরীরে জীবাণুনাশক স্প্রে দেন আলমগীর। এরপর তাকে পাচুর মোড়ে পৌঁছে দেন। এরজন্য তিনি আলাদা কোনো অর্থ নেননি।



এ বিষয়ে আলমগীর বলেন, ‘বিভিন্ন টিভি চ্যানেলের খবরে দেখেছি করোনা ভাইরাসের কারণে বাংলাদেশের মানুষও হুমকির মুখে রয়েছে। বিশ্বব্যাপী ছড়িয়ে পড়া মহামারি করোনা মোকাবেলায় আমাদের সচেতন থাকতে হবে। তাই, এক সপ্তাহ থেকে নিজ খরচে যাত্রীদের শরীরে জীবাণুনাশক স্প্রে দেয়া শুরু করি। আমি মনে করি, সবাই সচেতন হয়ে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চললেই আমরা দ্রুতই করোনাভাইরাস থেকে পরিত্রাণ পাবো।’


জয়পুরহাট শহরের আউশগাড়া নিবাসী পাঁচবিবি মহিলা কলেজের অ্যাসিস্টেন্ট প্রফেসর ফরিদা ইয়াসমিন এ বিষয়ে জানান, রেলগেটে আলমগীর হোসেনের কর্মকাণ্ড লক্ষ্য করি। তিনি একজন সাধারণ রিকশাচালক। লেখাপড়াও বেশি দূর করেননি। কিন্তু তিনি যা করছেন তা সমাজের অনেক শিক্ষিত মানুষও করেন না। করোনাভাইরাস প্রতিরোধে তার এমন কর্মকাণ্ড সত্যিই প্রসংসার দাবি রাখে। তার মতো সকলে করোনা প্রতিরোধে এগিয়ে আসলে সত্যিই খুব দ্রুত এই ভয়কে জয় করা সম্ভব হবে।


এ বিষয়ে জয়পুরহাট সরকারি কলেজের ব্যবস্থাপনা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক গোলাম আজম বলেন, ‘একজন রিকশাচালক করোনাভাইরাসের সংক্রামণ ঝুঁকি এড়াতে নিজ খরচে যাত্রীদের শরীরে স্প্রে দিচ্ছেন-এটা একটি মহৎ কাজ। এই সকল ভালো কাজে সহযোগিতার জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি জানাই। আলমগীর হোসাইনের মতো সমাজের প্রতিটি মানুষ এভাবেই এগিয়ে আসলে সমাজটা সহজেই সুন্দর হবে।’


বিবার্তা/সোহেল/জাহিদ

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com