বাড়িতে বাবার লাশ রেখে পরীক্ষা দিলো মেহেদী!
প্রকাশ : ০৬ নভেম্বর ২০১৯, ২০:০৩
বাড়িতে বাবার লাশ রেখে পরীক্ষা দিলো মেহেদী!
টাঙ্গাইল প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

টাঙ্গাইলের মির্জাপুর উপজেলার লতিফপুর ইউনিয়নের সোনাতলা গ্রামের বাসিন্দা মজিবুর রহমান (৫৮) মঙ্গলবার (৫ নভেম্বর) রাতে হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়লে তাকে মির্জাপুর কুমুদিনী হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ওই রাতেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান।


এদিকে মজিবুর রহমানের ছেলে মেহেদীর জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট বা জেএসসি পরীক্ষা চলছিলো।


বুধবার (৬ নভেম্বর) ইসলাম ও নৈতিক শিক্ষা পরীক্ষা ছিলো মেহেদীর। তাই সে বাবার লাশ বাড়ীতে রেখে পরীক্ষা দিতে জায়। পরীক্ষা শেষে বাবার জানাযায় অংশ নেয় মেহেদী।


পরিবার সূত্রে জানা যায়, উপজেলার পৌর সদরের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এসকে পাইলট সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির (ক) শাখার শিক্ষার্থী মেহেদী হাসান (১৪)। বুধবার (৬ নভেম্বর) মেহেদী মির্জাপুর সরকারি কলেজ পরীক্ষা কেন্দ্রে পরীক্ষায় অংশগ্রহণ করে। সুষ্ঠুভাবে পরীক্ষা দেয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের কথা বলেন কেন্দ্র সচিব মো. মাসুদুর রহমান।


এ ঘটনার পর এসকে পাইলট সরকারি উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. রফিকুল ইসলাম খানসহ সকল শিক্ষকবৃন্দ শোক প্রকাশ করেছেন। মজিবুর রহমান কালিয়াকৈর উপজেলার জুনিয়র পরিসংখ্যান সহকারি কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত ছিলেন। মৃত্যুকালে তিনি ১ ছেলে ও ১ মেয়ে, স্ত্রী, আত্মীয়-স্বজনসহ অসংখ্য গুণগ্রাহী রেখে গেছেন।


বিবার্তা/তোফাজ্জল/আবদাল

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com