‘মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার বন্ধ হয়নি’
প্রকাশ : ২৮ আগস্ট ২০১৮, ১৫:০৯
‘মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার বন্ধ হয়নি’
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার বন্ধের যে খবর বেরিয়েছে তা সঠিক নয় উল্লেখ করে প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী নুরুল ইসলাম বিএসসি বলেছেন, মালয়েশিয়ার শ্রম বাজার নিয়ে যে ধোঁয়াশা তৈরি হয়েছে তার প্রকৃত অবস্থা জানতে বাংলাদেশি দূতাবাসের মাধ্যমে তাদের একটি ‘ভারবাল নোট’ বা চিঠি দেয়া হয়েছে।


তিনি বলেন, মালয়েশিয়ার শ্রমবাজার বন্ধ হয়নি। তবে বিদ্যমান প্রক্রিয়া বন্ধ রয়েছে। আগামী সেপ্টেম্বর থেকে আগের নিয়মেই লোক পাঠানো যাবে।


তিনি আরো বলেছেন, মালয়েশিয়ায় একচেটিয়া বাজার নিয়ন্ত্রণের মাধ্যমে অনৈতিক ব্যবসা পরিচালনার অভিযোগে বাংলাদেশের ১০টি রিক্রুটিং এজেন্সিকে শো-কজ করা হবে।


প্রবাসী মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে মঙ্গলবার রিপোর্টার্স ফর বাংলাদেশি মাইগ্রেন্টের উদ্যোগে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।


মন্ত্রী বলেন, মালয়েশিয়ার শ্রম বাজার এখনো চালু আছে, শুধু পদ্ধতিগত পরিবর্তনের কথা বলছে তারা। এখনো ৩০ হাজার ভিসা সম্বলিত অপেক্ষমান শ্রমিক আছে। তারা তো বলেনি যে এরাও যেতে পারবে না। শুধু ৩১ আগস্ট পর্যন্ত যে এসপিপিএ সিস্টেম আছে সেই সিস্টেমে যেতে পারবে। ১ সেপ্টেম্বর থেকে অটোমেটিকালি পুরোনো পদ্ধতিতে যাবে।


এক প্রশ্নের জবাবে নুরুল ইসলাম বলেন, ১০ এজেন্সির সিন্ডিকেটের কথা বলা হচ্ছে তা বাংলাদেশ সরকারের নয়, মালয়েশিয়া সরকারের সৃষ্ট। এ বিষয়ে তারা আনুষ্ঠানকিভাবে কোনো অভিযোগ জানায়নি।


তিনি বলেন, মালয়েশিয়ায় শ্রমিক পাঠানোর বিষয়ে যে সিন্ডিকেটের বিরুদ্ধে অভিযোগ উঠেছে তাদের শোকজ করা হবে। তাদের কাছে জানতে চাওয়া হবে তারা কেন এমন করছেন। তবে তার আগে এ সংক্রান্ত সব ডাটা কালেক্ট করতে হবে।


মালয়েশিয়ায় জনশক্তি রফতানি একচেটিয়া নিয়ন্ত্রণে বাংলাদেশের ১০টি রিক্রুটিং এজেন্সির বিরুদ্ধে অভিযোগ রয়েছে। মালয়েশিয়ার একটি প্রভাবশালী চক্রের সঙ্গে মিলে তাদের অনৈতিক ব্যবসা পরিচালনার কারণে বাংলাদেশ থেকে ‘জিটুজি প্লাস’ নামের বর্তমান নিয়োগ পদ্ধতি আগামী ১ সেপ্টেম্বর বাতিল করা হয়েছে।


এজেন্সি ১০টি হলো ইউনিক ইস্টার্ন, ক্যারিয়ার ওভারসিজ, ক্যাথারসিস ইন্টারন্যাশনাল, এইচএসএমটি হিউম্যান রিসোর্স, সানজারি ইন্টারন্যাশনাল, রাব্বি ইন্টারন্যাশনাল, প্যাসেজ অ্যাসোসিয়েটস, আমিন ট্যুরস অ্যান্ড ট্রাভেলস, প্রান্তিক ট্রাভেলস অ্যান্ড টুরিজম ও আল ইসলাম ওভারসিজ।


সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন মন্ত্রণালয়ের সচিব নমিতা হালদার, জনশক্তি, কর্মসংস্থান ও প্রশিক্ষণ ব্যুরোর (বিএমইটি) মহাপরিচালক সেলিম রেজা, রিপোর্টার্স ফর বাংলাদেশি মাইগ্রেন্ট সভাপতি ফিরোজ মান্না, সাধারণ সম্পাদক মাসুদুল হকসহ ইলেকট্রনিক এবং অনলাইন মিডিয়ার সাংবাদিকরা।


বিবার্তা/জাকিয়া


>>বদলে যাচ্ছে মালয়েশিয়ায় শ্রমিক পাঠানোর নীতিমালা

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com