করোনা ঝুঁকি উপেক্ষা করে ঢাকামুখী মানুষের ঢল
প্রকাশ : ০৪ এপ্রিল ২০২০, ১৯:৩৯
করোনা ঝুঁকি উপেক্ষা করে ঢাকামুখী মানুষের ঢল
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে সারা দেশে চলছে লকডাউন। সরকারি ছুটির পাশাপাশি বন্ধ রয়েছে সব ধরনের গণপরিবহন চলাচল। কিন্তু করোনাভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি নিয়ে সামাজিক নিরাপত্তা উপেক্ষা করে কর্মস্থলে যেতে শুরু করেছে মানুষ। শনিবার সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত গোয়ালন্দ উপজেলার দৌলতদিয়া ফেরিঘাটে যাত্রীদের ভিড় লক্ষ করা যায়।


দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের বিভিন্ন জেলা থেকে আসা যাত্রীরা বলেন, আগামীকাল (৫ এপ্রিল) গার্মেন্টসসহ বেসরকারি অনেক প্রতিষ্ঠান খোলা থাকার কারণে চাকরি বাঁচানোর জন্য তাদের কর্মস্থলে যেতে হচ্ছে।


তারা বলেন, রাস্তায় গণপরিবহন না থাকার কারণে অতিরিক্ত ভাড়া দিয়ে ব্যাটারিচালিত অটোরিকসা, মাহেন্দ্র অথবা ভ্যানে করে দৌলতদিয়া পর্যন্ত আসতে হয়েছে।


গোয়ালন্দ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. রুবায়েত হায়াত শিপলু বলেন, আগামীকাল পোশাক কারখানাসহ অনেক বেসরকারি প্রতিষ্ঠান খোলার কারণে যাত্রীদের যেতে হচ্ছে। আমার বিআইডব্লিটিসির দৌলতদিয়া কর্তৃপক্ষকে বিষয়টি অবহিত করেছি ব্যবস্থা নেবার জন্য।


বিআইডব্লিউটিসির দৌলতদিয়া ঘাট ব্যবস্থাপক আবু আব্দুল্লাহ রনি জানান, সরকারি আদেশে সারা দেশে গণপরিবহন চলাচল বন্ধ রয়েছে। নৌপথে শুধু পণ্যদ্রব্য পারাপারের জন্য সীমিত আকারে ফেরি চালু রাখা হয়েছে। যানবাহন কমে যাওয়ায় এ নৌরুটের ১৬টি ফেরির মধ্যে ১১টি বসিয়ে রেখে আমরা মাত্র ৫টি ফেরি চালু রেখেছি।


কিন্তু শনিবার দুপুর থেকে মানুষের চাপে আমরা ঠিকমতো পণ্যবাহী যানবাহন পারাপার করতে পারছি না। প্রতিটি ফেরিতেই মানুষের উপচে পড়া ভিড়। এরা সবাই বিভিন্ন গার্মেন্টস ও অন্যান্য ছোট-খাটো কারখানা ও ব্যক্তি মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠানের কর্মী। করোনা ঝুঁকি থাকলেও ফেরিতে এদের এভাবে পারাপার ঠেকানো আসলে সম্ভব নয় বলে তিনি মন্তব্য করেন।


বিবার্তা/জাহিদ

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com