গ্রন্থমেলায় শান্তনু চৌধুরীর তিন বই
প্রকাশ : ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ০৩:১৫
গ্রন্থমেলায় শান্তনু চৌধুরীর তিন বই
বিবার্তা ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

অমর একুশে গ্রন্থমেলায় প্রকাশ হয়েছে শান্তনু চৌধুরীর তিনটি বই। বইগুলো হলো, ‘টেলিভিশন সাংবাদিকতা, সংবাদ ও সম্পাদনা’। বইটি প্রকাশ করেছে উৎস প্রকাশন। বইটি পাওয়া যাবে ৯-নম্বর প্যাভিলিয়নে, বইটির দাম ধরা হয়েছে ২৪০ টাকা। প্রেম ও প্রেমহীনতার উপন্যাস ‘রসিকা’ প্রকাশ করেছে পার্ল পাবলিকেশন্স। বইটি পাওয়া যাবে ৬-নম্বর প্যাভিলিয়নে। বইটির দাম ধরা হয়েছে ২৫০ টাকা। মুক্তিযুদ্ধের বাস্তব ঘটনা নিয়ে উপন্যাস ‘সূর্যোদয়ের আগে’ প্রকাশ করেছে বেহুলা বাংলা। বইটি পাওয়া যাবে ১৭৩ এবং ১৭৪-নম্বর প্যাভিলিয়নে। বইটির দাম ধরা হয়েছে ১৬৪ টাকা। সবগুলো প্রকাশনার প্যাভিলিয়ন বসানো হয়েছে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে।



টেলিভিশন সাংবাদিকতা : সংবাদ ও সম্পাদনা


সময় এখন টেলিভিশন সাংবাদিকতার। সাহসী ও আলোচিত পেশা বলা যায় এটিকে। তরুণ-তরুণীরা নিজেকে মেলে ধরার জন্য ঝুঁকছেন এই পেশায়। তুলে আনছেন তৃণমূল থেকে আলোচিত নানা প্রতিবেদন। হাতে বুম, কাঁধে ব্যাকপ্যাক, ট্রাইপড, ক্যামেরা নিয়ে একেক জন ছুটে চলছেন এখান থেকে সেখানে। নিরন্ন মানুষ থেকে বিপন্ন মানুষ। সন্ত্রাসের শিকার থেকে শিকারী, রাষ্ট্রের গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি থেকে বিশ্বমোড়ল। দেশ থেকে বিদেশ সবখানেই সরব উপস্থিতি টিভি সাংবাদিকদের। প্রকৃতপক্ষে সাংবাদিকতা তাত্ত্বিক নয়, ব্যবহারিক জ্ঞান। যারা শুরুতে টিভি সাংবাদিকতায় আসতে চান তাদের সহযোগিতার জন্য নিজের অভিজ্ঞতা থেকে জানা-বোঝার জন্যই এই বই লিখেছেন শান্তনু চৌধুরী। এতে চেষ্টা করা হয়েছে তাত্ত্বিক আলোচনা কম করে বাস্তবে যা হয় তা তুলে ধরতে। বইটি মনোযোগের সঙ্গে পড়লে একজন তরুণ সত্যিকার অর্থেই নিজেকে প্রস্তুত করতে পারবেন আগামী দিনের সফল সাংবাদিক হিসেবে।



প্রেম ও প্রেমহীনতার উপন্যাস ‘রসিকা’


রসিকা। যার জীবন ঘুরপাক খায় আলো-আঁধারিতে। ম্লেচ্ছ জীবন থেকে উঠে আসা রসিকা একটু ভালোভাবে বাঁচার আশায় জীবনকে সাজাতে চায়। ওর পাশে এসে দাঁড়ায় এক পথিক। জীবনের অমৃতের সন্ধান দেন যিনি। কিন্তু জীবন কি ওকে সহজে ছাড় দেয়। ওর চলার পথের প্রতিটা বাঁকে বাঁকে অপেক্ষা করে চমক। সেখানে ঝড়-ঝঞ্ঝা আসে। আঘাত আসে। থাকে কতো উলট-পালট গল্প! নিজের ভুল থেকে, ব্যর্থতা থেকে রসিকা শিখতে চেষ্টা করে। পাথর চূর্ণ-বিচূর্ণ করে, স্বপ্ন আর প্রত্যয়ে এগিয়ে চলে ও। কিন্তু সমাজের লোভাতুর পুরুষগুলো তাকে সহজে উঠে দাঁড়াতে দেয় না। লোভ, প্রেম লালসা একের পর এক ঘিরে ধরে ওকে। তাহলে কি ও হারিয়ে যাবে জীবন থেকে? নাকি বুকের গম্বুজে ছলনা আর প্রেমের আশ্রয় নিয়ে রসিকা একের পর এক টপকাবে সাফল্যের সিঁড়ি।



মুক্তিযুদ্ধের বাস্তব ঘটনা নিয়ে উপন্যাস ‘সূর্যোদয়ের আগে’


যুদ্ধ। বদলে দেয় সময়কে। বদলে দেয় মানুষকে। যাপিত জীবনে ঘটে ছন্দপতন। ক্ষুধার তাড়নায় মায়ের কোলে মরছে শিশু। পথে পথে লাশের সারি। ছিঁড়ে কুঁড়ে খাচ্ছে শকুন। পাকিস্তানি সেনাদের পৈশাচিক উল্লাসের কাছে হার মানে মানবতা। খুনেরও রয়েছে ভয়ংকর রূপ। ছেলের রক্তে গোসল করানো হয়েছে মাকে। সন্তানের সামনে হয়েছেন ধর্ষিতা। জীবন বাঁচাতে বোনকে তুলে দিতে হয়েছে জানোয়ারের হাতে। ‘গণিমতের মাল’ হিসেবে তরুণীদের শরীর নিয়ে ছিনিমিনি খেলেছে পাক হায়েনারা। কেউ কেউ শরণার্থী হয়ে ছেড়েছেন দেশ। কেউ ফিরেছেন। কেউ ফিরতে চেয়েও পারেননি। এসব নিয়েই মুক্তিযুদ্ধ ভিত্তিক উপন্যাস সূর্যোদয়ের আগে। ১৬ ডিসেম্বরকে যদি স্বাধীনতার সূর্যোদয় ধরি তবে এর আগেই হিংস্র উন্মত্ত পাকিস্তানিরা এদেশের দোসর রাজাকার, আলবদরদের সহায়তায় ঘটিয়েছে ইতিহাসের জঘন্যতম হত্যাযজ্ঞ।


এসবের মধ্যেও কেউ কেউ ঘুরে দাঁড়িয়েছেন। দেশমাতৃকার জন্য জীবন দিতে কুণ্ঠিত হননি এতোটুকু। কিন্তু সময় কি তাদের মনে রেখেছে? যুদ্ধ দিনে যারাই ছিলেন স্বজন, আজ তারাই যেন কুজন। বীরদের কীর্তি ভুলতে বসেছে প্রজন্ম। পুরনো শকুন এখনো লাশের সারি খোঁজে। আর সব হারানোর দল খোঁজে স্বপ্নের মাতৃভূমি।



শান্তনু চৌধুরীর পরিচিতি


ভালোবাসার যুগ এখন নয়। সবাই পুরোদস্তুর হিসেবি। তবুও, কেউ কেউ জ্বেলে রাখেন ভালোবাসার অর্ঘ্য। কেউ প্রবল বিচ্ছেদেও স্বপ্ন দেখেন। শান্তনু চৌধুরী তেমনিই একজন। মানুষের গভীরে ডুব দিয়ে সত্যিকারের মানুষটিকে খুঁজে ফেরেন। ভালোবাসা, চিরহরিৎ বনের সোনার হরিণ সে কথা তিনি বিশ্বাস করেন। আর বিশ্বাস করেন বলেই লিখে চলেছেন প্রেম আর প্রেমহীনতার গল্প। গল্প দিয়েই তিনি মানুষের বিস্ময়, স্মৃতিকাতরতা, আকুলতা, স্বপ্ন আর স্বপ্নভঙ্গের কথা বলেন। বাঙালি মধ্যবিত্তের ভেতর-বাহির, দৈন্যতা, যাপিত জীবন, বিচিত্রতার কথাও তিনি লেখায় রূপায়ন করছেন স্বতঃস্ফূর্ততায়। ভালোবাসেন নদী, ফুল, পাখি আর সবুজ অরণ্য। শিল্পী তিনি, সমাজের দায়ও তাকে মেটাতে হয়। তাই রাষ্ট্র আর সমাজের ইতি-উতি নিয়ে ভাবেন। সেই ভাবনা প্রকাশ করেন দৈনিক পত্রিকা ও অনলাইনে। সমান তালে লিখে চলেছেন গল্প, কবিতা ও উপন্যাস। চট্টগ্রামের সাতকানিয়া উত্তর ঢেমশা গ্রামে জন্ম নেয়া শান্তনু চৌধুরী প্রাতিষ্ঠানিক পাঠ শেষ করেছেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় থেকে। পেশা সাংবাদিকতায় পার করেছেন এক যুগেরও বেশি সময়। বর্তমান ব্যস্ততা টেলিভিশনের অন্দরমহলে।


বিবার্তা/বিজ্ঞপ্তি/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com