‘স্বপ্নযাত্রা বাস্তবায়ন করে ওয়ার্ডের সেবক হতে চাই’
প্রকাশ : ১৪ জানুয়ারি ২০২০, ১৫:৩৩
‘স্বপ্নযাত্রা বাস্তবায়ন করে ওয়ার্ডের সেবক হতে চাই’
মহিউদ্দিন রাসেল
প্রিন্ট অ-অ+

ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশনের (ডিএসসিসি) ২১ নম্বর ওয়ার্ডটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এলাকা। কেননা, এ এলাকায় রয়েছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়, জাতীয় জাদুঘরের মত প্রতিষ্ঠান। রয়েছে শাহবাগ, বাংলামোটরসহ গুরুত্বপূর্ণ এলাকা। আমি নিজেও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ছিলাম। কাজেই এ এলাকা আমার এলাকা। এ এলাকার প্রতিটি অলি-গলি আমার ভালো করে চেনা-জানা। পাশাপাশি এ এলাকার প্রতিটি সংকটও আমার চোখে দৃশ্যমান। এ ওয়ার্ডটি গুরুত্বপূর্ণ হলেও এখানের অধিবাসীরা অনেক ক্ষেত্রে তাদের নাগরিক সেবা থেকে বঞ্চিত।বিভিন্ন ক্ষেত্রে তাদের জনদুর্ভোগ-দুর্দশা আমাকে ভাবিয়ে তুলেছে। এজন্য আমি এ ওয়ার্ডকে আধুনিক প্রযুক্তিনির্ভর মাদকমুক্ত পরিচ্ছন্ন ওয়ার্ড গড়তে নির্বাচনে অংশ নিয়েছি। আমার নির্বাচনী ইশতেহারের নাম ‘স্বপ্নযাত্রা’।আর এ ইশতেহার বাস্তবায়ন করে আমি ওয়ার্ডের সেবক হতে চাই।


সোমবার (১৩ জানুয়ারি) রাতে নিজ নির্বাচনী কার্যালয়ে বিবার্তার সাথে একান্ত আলাপচারিতায় এসব কথা বলেন ঢাকা দক্ষিণ সিটির ২১ নম্বর ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগ মনোনীত কাউন্সিলর প্রার্থী মো. আসাদুজ্জামান আসাদ। কাউন্সিলর পদে নির্বাচন, তার ভবিষ্যৎ পরিকল্পনাসহ বিভিন্ন বিষয়ে কথা বলেছেন তিনি। তার দীর্ঘ আলাপচারিতার চুম্বক অংশ বিবার্তার পাঠকদের জন্য এখানে তুলে ধরা হলো।



ঢাকা দক্ষিণ সিটির ২১ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থীআসাদুজ্জামান আসাদ


বিবার্তা : বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ থেকে মনোনীত হয়ে কাউন্সিলর পদে নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। এ বিষয়ে আপনার অনুভূতি কেমন?


আসাদুজ্জামান আসাদ : আমি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ছিলাম। বিশ্ববিদ্যালয় জীবনে আমি ছাত্রলীগের সক্রিয় রাজনীতি করতাম। ছাত্রলীগের বিভিন্ন পর্যায়ের পদও পেয়েছিলাম। সর্বশেষ ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সম্পাদক ছিলাম। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সদ্য সাবেক কমিটির কার্যনির্বাহী সদস্যও ছিলাম। আমার এ বয়সের পুরোটাই রাজনীতি করেছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে মনোনয়ন দিয়ে মূল্যায়ন করায় আমি তার কাছে কৃতজ্ঞ। জনগণের ভোটে নির্বাচিত হয়ে জনগণের জন্য কাজ করে আমি প্রধানমন্ত্রীকে এ আস্থার প্রতিদান দিতে চাই।



মতবিনিময় সভায় আসাদুজ্জামান আসাদ


বিবার্তা : এবারের নির্বাচন ঢাকা সিটির গতিশীলতার জন্য কেন জরুরি?


আসাদুজ্জামান আসাদ : দেখুন, যেকোনো নির্বাচনই গতিশীলতার জন্য গুরুত্বপূর্ণ। কেননা, নির্বাচনের মাধ্যমে মানুষ নতুন করে ভাববার সুযোগ পায়। এর মাধ্যমে সবকিছুতে গতিশীলতা আসে।



আসাদুজ্জামান আসাদের নির্বাচনী পোস্টার


বিবার্তা : আপনি কাউন্সিলর পদে নির্বাচিত হলে কোন কাজগুলোকে অগ্রাধিকার দিতে চান?


আসাদুজ্জামান আসাদ : মাদক ও সন্ত্রাসমুক্ত, পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন, নারীদের জন্য নিরাপত্তা, আধুনিক প্রযুক্তিনির্ভর ২১ নং ওয়ার্ড গড়ার প্রত্যয় নিয়ে আমি ‘স্বপ্নযাত্রা’ ইশতেহার দিয়েছি। নির্বাচিত হলে আমার ওয়ার্ডকে স্বপ্নযাত্রা ইশতেহার বাস্তবায়নের মাধ্যমে ডিজিটাল ওয়ার্ডে পরিণত করবো।



মতবিনিময় সভায় আসাদুজ্জামান আসাদ


বিবার্তা : গত বছর আপনার এলাকায় ডেঙ্গু সমস্যা প্রকট আকার ধারণ করেছিল। এ ব্যাপারে আপনার আলাদা কোনো পরিকল্পনা রয়েছে কিনা?


আসাদুজ্জামান আসাদ : গত বছর আমি নিজে ডেঙ্গু সমস্যায় কাজ করেছি। টানা ১৫ দিন মশকনিধনের ওষুধ স্প্রে করেছি। ৪০ জনের নিজস্ব স্বেচ্ছাসেবক দলও গঠন করেছিলাম। আমি নির্বাচিত হলে এব্যাপারে আমার আলাদা পরিকল্পনা রয়েছে। 'ক্লিন ২১' নামে একটি অ্যাপস তৈরি করবো, যেখানে এলাকার জনগণ কোথাও অপরিচ্ছন্নতা দেখলেই ছবি তুলে অ্যাপসে আপলোড করতে পারবেন। এরপর সেখানে পরিচ্ছন্নতাকর্মী গিয়ে সেটাকে পরিষ্কার করবেন।



নির্বাচনী গণসংযোগে আসাদ


বিবার্তা : ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস যেহেতু আপনার ওয়ার্ডে। নির্বাচিত হলে এ ক্যাম্পাস নিয়ে আপনার পরিকল্পনা কী?


আসাদুজ্জামান আসাদ : আমি নিজে যেহেতু ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ছিলাম, সেহেতু এখানকার সংকট সম্পর্কে আমি খুব ভালো জানি। আমি নির্বাচিত হলে এ ক্যাম্পাসের পুরো এলাকা সিসি ক্যামেরার আওতায় আনা হবে। ছিনতাই রোধে কার্যকরী পদক্ষেপ নেব। ঢাবিতে প্রতিদিনই বিভিন্ন রকম অনুষ্ঠান হয়। তাই এখানকার পুরো এলাকা শৈল্পিক ও নান্দনিকভাবে সাজানোর ইচ্ছা রয়েছে। এ ক্যাম্পাসের দেয়ালের আশপাশে যাতায়াতকারীরা যাতে মলমূত্র ত্যাগ করতে না পারে, সেজন্য সেখানে বাহারি ফুলের গাছ লাগানোর পরিকল্পনা রয়েছে। স্বেচ্ছাসেবী দল গঠন করে শাহবাগ ও নীলক্ষেত এলাকার যানজট নিরসনে কাজ করার পরিকল্পনা রয়েছে।



নির্বাচনী প্রচারণায় আসাদ


বিবার্তা : আপনার বিপরীতে যারা প্রার্থী আছেন তাদেরকে কিভাবে দেখছেন?


আসাদুজ্জামান আসাদ : তাদেরকে নিয়ে আমার কোনো মাথাব্যথা নেই। আমি আমার নির্বাচন করবো। তারা তাদের নির্বাচন করবেন।



আসাদের নির্বাচনী প্রচারণায় ওয়ার্ডবাসী


বিবার্তা : ভোটারদের উদ্দেশে আপনার আহ্বান কি?


আসাদুজ্জামান আসাদ : প্রিয় ওয়ার্ডবাসী, আপনারা জানেন এ ওয়ার্ড ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় এলাকাকে ঘিরে। আমিও এখানকার শিক্ষার্থী ছিলাম। কাজেই এ এলাকার সংকট সম্পর্কে আমি খুব ভালো করে জানি। আপনাদের জন্য আমি স্বপ্নযাত্রা ইশতেহার ইতোমধ্যে দিয়েছি। আপনারা আমাকে লাটিম মার্কায় ভোট দিয়ে নির্বাচিত করলে আমি আমার স্বপ্নযাত্রা ইশতেহার বাস্তবায়ন করে আপনাদের নাগরিকের সর্বোচ্চ সেবা নিশ্চিত করবো।


বিবার্তা/রাসেল/উজ্জ্বল/জাই


সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com