ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীকে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে বাংলাদেশী আটক
প্রকাশ : ০৭ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ১৮:১৮
ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীকে হত্যাচেষ্টার অভিযোগে বাংলাদেশী আটক
কলকাতা প্রতিনিধি
প্রিন্ট অ-অ+

ভারতের ত্রিপুরা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবকে হত্যার ষড়যন্ত্র ফাঁস হয়েছে। বিপ্লবকে খুনের ষড়যন্ত্রের অভিযোগে রাজ্যটির আগরতলার গোলচক্কর থেকে এক বাংলাদেশীকে আটক করা হয়েছে। আজম খান নামে ওই ব্যক্তির কাছ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে একাধিক ভারতীয় পরিচয়পত্র ও নথি।


শুধু তাই নয়, রাজ্যটির মুখ্যমন্ত্রীসহ একাধিক মন্ত্রী ও ভিভিআইপির বাসভবনের নকশাও পাওয়া গেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার আজম খানকে ওয়েষ্ট ত্রিপুরা অতিরিক্ত মুখ্য বিচারবিভাগীয় বিচারক সর্বজিৎ চৌধুরীর এজলাশে তোলা হলে তার জামিন মঞ্জুর করা হয়।


পুলিশ জানায়, চট্টগ্রামের জালালাবাদ সেনা নিবাসে কমান্ডার পদে চাকরি করতো আজম। কিন্তু প্রশিক্ষণ চলাকালে চাকরি ছেড়ে দিয়ে ২০০৪ সালে সীমান্ত পেরিয়ে ত্রিপুরায় প্রবেশ করেন। সেখানে গিয়ে নাম পাল্টে হয়ে যান রাজু চৌধুরী। বিয়ে করেন এক ভারতীয় নারীকে। তাদের একটি সন্তানও রয়েছে। গত কয়েক বছর ধরে সেখানেই প্লাম্বিংয়ের কাজ করতেন।


মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেবের সরকারি বাসায় গিয়েও নাকি কাজ করেছেন আজম খান। এর পাশাপাশি রাজভবন (রাজ্যপালের সরকারি বাসভবন), গোবিন্দ বল্লভ পন্থ হাসপাতালসহ একাধিক সরকারি ভবনে প্লাম্বিংয়ের ঠিকাদারের কাজ করেছেন।


স্বাভাবিকভাবেই বিষয়টি নিয়ে যথেষ্ট শোরগোল পড়ে গেছে রাজ্যটিতে। ইতিমধ্যেই আজমকে দফায় দফায় জেরা করেছেন রাজ্য পুলিশের শীর্ষ কর্মকর্তারা। সে গুপ্তচরবৃত্তির সাথে কোনোভাবে জড়িত রয়েছেন কি-না তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে।


আজম খানের বিরুদ্ধে আগরতলার নির্যাতনের একটি মামলাও করেছিলেন তার স্ত্রী নাসিমা খাতুন। সে সময় থানায় স্ত্রী অভিযোগ করেন, মিথ্যা পরিচয় দিয়ে তাকে বিয়ে করে আজম। বাংলাদেশে নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠনের সাথেও জড়িত রয়েছে তার স্বামী।


কিন্তু এত অভিযোগের পরও সে সময় পুলিশ কোনো পদক্ষেপ নেয়নি। অবশেষে নির্দিষ্ট তথ্যের ভিত্তিতে বুধবার সন্ধ্যায় এসডিপিও (সদর) সুমন মজুমদার এবং পশ্চিম থানার ওসি সুব্রত চক্রবর্তীর নেতৃত্বে গোলচক্কর এলাকা থেকে রাজু ওরফে আজম খানকে আটক করেন।


মাত্র কয়েকদিন আগেই ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে খুনের ষড়যন্ত্রের অভিযোগে ভারতের একাধিক রাজ্য থেকে কয়েকজনকে গ্রেফতার করা হয়। তার পরেই এবার ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীকে খুনের ষড়যন্ত্রে এক বাংলাদেশীকে আটকের ঘটনায় উদ্বিগ্ন ভারতের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এ ঘটনার পরই ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রীর নিরাপত্তায় বাড়তি গুরুত্ব দেবার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।


বিবার্তা/ডিডি/কামরুল

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com