কোনো ভারতীয় নাগরিককে দেশ ছাড়তে হবে না: মোদি
প্রকাশ : ১২ আগস্ট ২০১৮, ১৪:৩৫
কোনো ভারতীয় নাগরিককে দেশ ছাড়তে হবে না: মোদি
আন্তর্জাতিক ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

ভারতের আসাম রাজ্যের জাতীয় নাগরিকপঞ্জি নিয়ে নীরবতা ভাঙলেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। প্রথমবার মুখ খুলেই পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জিকে তীব্র ভাষায় আক্রমণ করেছেন তিনি।


প্রশ্ন তুলেছেন, ‘গৃহযুদ্ধ’, ‘রক্তস্নান’-এর মতো শব্দ ব্যবহার করা নিয়ে। একই সাথে নাগরিকপঞ্জি নিয়ে আসামবাসীকে প্রধানমন্ত্রীর আশ্বাস, একজন ভারতীয় নাগরিকেরও কোনো সমস্যা হবে না।


গত ৩০ জুলাই প্রকাশিত হয়েছে আসামে জাতীয় নাগরিকপঞ্জির চূড়ান্ত খসড়া। তাতে বাদ পড়েছেন প্রায় ৪০ লাখ আসামবাসী। আর তারপর থেকে এই এনআরসির বিরুদ্ধে সবচেয়ে বেশি সরব মমতা। এনডিএ তথা মোদি সরকারের বিরুদ্ধে একের পর এক তোপ দেগেছেন আসামের প্রতিবেশী পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী। এমনকি এই তালিকার ফলে গৃহযুদ্ধ বা রক্তস্নানের আশঙ্কাও প্রকাশ করেছিলেন মমতা।


প্রধানমন্ত্রী এতদিন বিষয়টিতে নীরব ছিলেন। অবশেষে শনিবার সংবাদ সংস্থা এএনআইকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে আক্রমণের নিশানা করলেন সবচেয়ে সরব মমতাকেই।


মমতার নাম না করে মোদি বলেন, যারা নিজেদের প্রতি আস্থা হারিয়েছেন, জনসমর্থন হারানোর ভয় করছেন এবং যাদের গণতন্ত্র ও অন্যান্য রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠানের প্রতি আস্থা নেই, তারাই এই ধরনের মন্তব্য করতে পারেন। গৃহযুদ্ধ (সিভিল ওয়ার), রক্তস্নানের (ব্লাডবাথ) মতো শব্দ তারাই ব্যবহার করতে পারেন, যারা ভারতের নাড়ির স্পন্দন থেকে বিচ্ছিন্ন।


প্রধান বিরোধীদল কংগ্রেসকে আক্রমণ করে মোদি বলেন, এনআরসি রাজনীতির জন্য নয়, সাধারণ মানুষের জন্য। কিন্তু সেটা নিয়ে কেউ রাজনীতি করলে তা দুর্ভাগ্যজনক। কংগ্রেস ও তৃণমূল সেটাই করছে। কয়েক দশক ধরে কংগ্রেস বাংলাদেশী অনুপ্রবেশকারীদের প্রশ্নটি জিইয়ে রেখেছে।


একইসাথে এ দিন নাগরিকপঞ্জি থেকে বাদ পড়া ৪০ লাখ মানুষকে আশ্বস্ত করার চেষ্টা করতেও কসুর করেননি মোদি।


তিনি বলেন, আমি নিশ্চিত করে বলতে পারি, এনআরসির জন্য কোনো ভারতীয় নাগরিককে দেশ ছাড়তে হবে না। এখনো বেশ কিছু প্রক্রিয়া বাকি। যারা বাদ পড়েছেন, তাদের নাগরিকত্ব প্রমাণের সব রকম সুযোগ দেয়া হবে।


পুশব্যাক বা অনুপ্রবেশকারীদের দেশে ফেরানোর প্রশ্নে মোদির জবাব, এমন ভাবার কারণ নেই যে, নাগরিকত্বের প্রমাণ দিতে না পারলেই পুশব্যাক করা হবে। বাদ পড়াদের মধ্যে যারা যে দেশ থেকে ভারতে এসেছেন, সেই দেশ নাগরিক হিসাবে স্বীকার করলে তবেই তাদের জন্মভূমিতে ফেরত পাঠানো হবে। সূত্র: আনন্দবাজার


বিবার্তা/জাকিয়া

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com