রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাসহ নানাগুণ রয়েছে জাম্বুরায়
প্রকাশ : ২০ আগস্ট ২০১৯, ১৫:০০
রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাসহ নানাগুণ রয়েছে জাম্বুরায়
বিবার্তা ডেস্ক
প্রিন্ট অ-অ+

দেশীয় ফল জাম্বুরা। কোনো কোনো এলাকায় বাতাবিলেবু নামেও পরিচিত। দেখতে খুব সুন্দর। বড়সর একটি গোলাকার ফল। ভেতরের অংশ লাল-গোলাপী তবে কিছু কিছু সাদা রঙেরও হয়। মূলকথা এটি ভিটামিন সি সমৃদ্ধ একটি পুষ্টিকর ফল। যা রোগ প্রতিরোধসহ শরীরের নানা উপকারে আসে। ফলটি এখন বাজারে আসতে শুরু করেছে।


জাম্বুরা এক প্রকার লেবু জাতীয় টক-মিষ্টি ফল। এর ইংরেজি নাম Pomelo (pummelo বা pommelo) এবং বৈজ্ঞানিক নাম Citrus maxima বা Citrus grandis। বিভিন্ন ভাষায় এটি পমেলো, জাবং, শ্যাডক ইত্যাদি নামে পরিচিত। কাঁচাফলের বাইরের দিকটা সবুজ এবং পাকলে হালকা সবুজ বা হলুদ রঙের হয়। এর খোসা বেশ পুরু এবং খোসার ভিতরের দিকটা ফোমের মত নরম ।


লেবু জাতীয় ফলের মধ্যে এটাই সবচেয়ে বড় যা ১৫-২৫ সেমি ব্যাসবিশিষ্ট হয়ে থাকে। এর ওজন ১ থেকে ২ কেজি হয়। এর আদিভূমি দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া।


জাম্বুরার গুণাগুণ


প্রতি ১০০ গ্রাম খাদ্যযোগ্য জাম্বুরায় রয়েছে খাদ্যশক্তি ৩৮ কিলোক্যালরি। প্রোটিন ০.৫ গ্রাম। স্নেহ ০.৩ গ্রাম। শর্করা ৮.৫ গ্রাম। খাদ্যআঁশ ১ গ্রাম। থায়ামিন ০.০৩৪ মিলিগ্রাম। খনিজ লবণ ০.২০ গ্রাম। রিবোফ্লেভিন ০.০২৭ মিলিগ্রাম। নিয়াসিন ০.২২ মিলিগ্রাম। ভিটামিন বি২ ০.০৪ মিলিগ্রাম। ভিটামিন বি৬ ০.০৩৬ মিলিগ্রাম। ভিটামিন সি ১০৫ মিলিগ্রাম। ক্যারোটিন ১২০ মাইক্রোগ্রাম। আয়রন ০.২ মিলিগ্রাম। ক্যালসিয়াম ৩৭ মিলিগ্রাম। ম্যাগনেসিয়াম ৬ মিলিগ্রাম। ম্যাংগানিজ ০.০১৭ মিলিগ্রাম। ফসফরাস ১৭ মিলিগ্রাম। পটাশিয়াম ২১৬ মিলিগ্রাম। সোডিয়াম ১ মিলিগ্রাম। এর পুষ্টিমান অনেক উন্নত।


জাম্বুরা কোন কোন ক্ষেত্রে উপকারে আসে তা এবার জেনে নেয়া যাক


রোগ প্রতিরোধ করে


জাম্বুরাতে প্রচুর ভিটামিন সি রয়েছে। যার ফলে রক্তনালির সংকোচন-প্রসারণ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে এবং ডায়াবেটিস, সর্দি-জ্বর, নিদ্রাহীনতা, পাকস্থলী ও অগ্ন্যাশয়ের বিভিন্ন রোগ নিয়ন্ত্রণে সাহায্য করে। এছাড়া কোলস্টেরল নিয়ন্ত্রণ করে বিভিন্ন ধরনের হৃদরোগের হাত থেকে রক্ষা করে জাম্বুরা।


হজমের সমস্যা দূর করে


নিয়মিত জাম্বুরা খেলে কোষ্ঠকাঠিণ্য দূর হয় এবং পেটের নানা রকম হজমজনিত সমস্যার প্রতিকারও হয়। এতে রয়েছে প্রচুর আঁশ। যা পরিপাকে সাহায্য করে কোষ্ঠকাঠিণ্য ও ডায়রিয়ার মতো সমস্যা দূর করে। এর আঁশ পরিপাকতন্ত্রের ক্রিয়া সচল রাখে ও সঠিক মাত্রায় পরিপাক রস নিঃসৃত করে। যার ফলে খাদ্যের সর্বোচ্চ পরিপাক হয়ে হজমের সমস্যা দূর করে।


ক্যান্সার প্রতিরোধ করে


বাতাবিলেবু বা জাম্বুরা আন্ত্রিক, অগ্ন্যাশয় ও স্তন ক্যান্সার প্রতিরোধ করে। এর লিমোনয়েড নামক উপকরণ ক্যান্সারের জীবাণুকে ধ্বংস করে এবং এর আঁশ মলাশয়ের ক্যান্সার প্রতিরোধ করে।


ওজন হ্রাস করে


জাম্বুরাতে রয়েছে প্রচুর আঁশ। এটি দেহের অতিরিক্ত চর্বি ঝরাতে সাহায্য করে। তাই নিয়মিত জাম্বুরা খেলে শরীরের ওজন কমে।


রক্তচলাচল বৃদ্ধি করে


এতে রয়েছে প্রচুর পটাশিয়াম। যা আমাদের ধমনির আয়তন বৃদ্ধি করে রক্ত চলাচলের পথকে সুগম করে। ফলে দেহের বিভিন্ন প্রান্তে অক্সিজেন পৌঁছানো সহজ হয়, যার ফলে হৃৎপিণ্ডের ওপর চাপ কমে এবং স্ট্রোক, হার্ট অ্যাটাক ও অ্যাথেরো সক্লেরোসিসের আশঙ্কা হ্রাস করে।


হাড় মজবুত করে


আমাদের দেহে পটাশিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম ও সোডিয়ামের অভাব হলে অস্টিওপোরোসিসসহ হাড়ের নানাবিধ রোগ দেখা দেয়। জাম্বুরাতে এই খনিজ উপাদানসমূহ পর্যাপ্ত পরিমাণে পাওয়া যায়।


বার্ধক্য রোধ করে :


নিয়মিত জাম্বুরা বা বাতাবিলেবু খাওয়া হলে অকাল বার্ধক্যের চিহ্নসমূহ হতে মুক্তি পাওয়া যায়। এছাড়া জাম্বুরায় স্পারমেডিন নামক একটি বিশেষ উপাদান রয়েছে। যা বার্ধক্য প্রতিরোধে সহায়তা করে।


পাকা জাম্বুরা খোসা ছাড়িয়ে খালিও খেতে পারেন অথবা জুস করেও খাওয়া যায়।


বিবার্তা/শারমিন

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com