দেশের সিনেমা শিল্পের খুব বেশি প্রয়োজন কাজী হায়াৎকে
প্রকাশ : ১১ জানুয়ারি ২০১৯, ১২:৪৬
দেশের সিনেমা শিল্পের খুব বেশি প্রয়োজন কাজী হায়াৎকে
অভি মঈনুদ্দীন
প্রিন্ট অ-অ+

বুধবার দিনব্যাপী দেশ-বিদেশে গুজব ছড়িয়ে পড়েছিলো যে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কারপ্রাপ্ত চলচ্চিত্র পরিচালক কাজী হায়াৎ ইন্তেকাল করেছেন। কিন্তু তার ছেলে কাজী মারুফ নিশ্চিত করেছেন যে তার বাবা ভালো আছেন। তার চিকিৎসা চলছে।


জানা গেছে, হৃদরোগে ও ডায়াবেটিসে আক্রান্ত হয়ে কাজী হায়াৎ’র ঘাড়ের একটি রক্তনালীতে ব্লক ধরা পড়েছে। উন্নত চিকিৎসার জন্য যুক্তরাষ্ট্রের নিউইয়র্কের প্রেসবাইটন হসপিটালে চিকিৎসাধীন আছেন। বাবার জন্য বারবার দেশবাসীর কাছে, চলচ্চিত্র পরিবারের কাছে দোয়া চাইছেন কাজী হায়াৎ’র ছেলে কাজী মারুফ।


কাজী হায়াত বাংলাদেশের সিনেমার গর্ব। তার মতো গুণী নির্মাতার চলচ্চিত্রের এই ক্লান্তিলগ্নে সুস্থ হয়ে ফিরে এসে চলচ্চিত্র শিল্পের হাল ধরাটা খুবই জরুরী হয়ে পড়েছে। যেখানে একের পর এক মেধাবী এবং কিংবদন্তী নির্মাতারা সবাইকে কাঁদিয়ে পরপারে চলে যাচ্ছেন। একে একে চলচ্চিত্র পরিবার মেধাশূণ্য হয়ে পড়ছে, সেখানে কাজী হায়াৎ’র মতো গুণী নির্মাতার সুস্থ হয়ে ফিরে আসাটা ভীষণ জরুরী। কারণ তিনিও যদি আমাদের ছেড়ে চলে যান তাহলে চলচ্চিত্র পরিবার আরো অভিভাবকহীন হয়ে পড়বে।


কাজী হায়াৎ এমনই একজন পরিচালক যার সিনেমায় এদেশের সমাজ ব্যবস্থার বাস্তব চিত্র ফুটে উঠতো। তার সমসাময়িক অনেক নির্মাতার সিনেমায় তা ফুটে উঠতো না। একজন সাহসী পরিচালক হিসেবেও তার খ্যাতি রয়েছে দেশে বিদেশে। দেশের প্রতি, দেশের মানুষের প্রতি, দেশের সিনেমার প্রতি যে তার রয়েছে অপরিসীম ভালোবাসা তা তিনি প্রমাণ করেছেন তার নির্মিত ‘দেশ প্রেমিক’ সিনেমাতে। এই সিনেমা নির্মাণের জন্য তিনি শ্রেষ্ঠ পরিচালক হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পেয়েছিলেন।


এছাড়াও তিনি বিভিন্ন সময়ে আরো সাতবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার লাভ করেন সিনেমা নির্মাণের ক্ষেত্রে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে। কাজী হায়াত নির্মিত প্রথম সিনেমা ছিলো ‘দি ফাদার’ প্রথম সিনেমা নির্মাণ করেই নির্মাতা হিসেবে ১৯৭৯ সালে আলোড়ন সৃষ্টি করেন। এরপর তার নির্মিত ‘দিলদার আলী’,‘ খোকন সোনা’, ‘মনা পাগলা’, ‘পাগলী’, ‘দায়ী কে’, ‘দাঙ্গা’, ‘ত্রাস’, ‘সিপাহী’, ‘লুটতরাজ’, ‘তেজী’, ‘আম্মাজান’, ‘ধর’, ‘কষ্ট’, ‘বর্তমান’, ‘ইতিহাস’, ‘মিনিস্টার’, ‘ওরা আমাকে ভালো হতে দিলো না’, ‘সর্বনাশা ইয়াবা’ সিনেমা নির্মাণের মধ্যদিয়ে সমাজের নানান স্তরের সমস্যা তুলে ধরার পাশাপাশি তা সমাধানেরও পথ দেখানোর চেষ্টা করেছেন।


কাজী হায়াৎ বাংলাদেশের সিনেমার গর্ব। সবসময়ই ব্যতিক্রম গল্প নিয়ে সিনেমা নির্মাণে তিনি বারবার তার মেধার পরিচয় দিয়েছেন। এরইমধ্যে তার নতুন সিনেমা ‘বীর’র কাজ শুরু হবার কথা ছিলো। কিন্তু চিকিৎসায় থাকার কারণ তা নির্মাণ থেকে আপাতত তাকে বিরত থাকতে হচ্ছে। চলচ্চিত্র পরিবার’সহ দেশবাসী দোয়ায় নিশ্চয়ই কাজী হায়াৎ দ্রুত সুস্থ হয়ে দেশে ফিরবেন। আবারো তিনি তার চিরছেন বিএফডিসিতে কর্মব্যস্ত হয়ে উঠবেন, এমনটাই প্রত্যাশা চলচ্চিত্র পরিবারের সবার।


কাজী হায়াৎ’র সুস্থতা কামনা করে আম্মাজান’খ্যাত নায়িকা শবনম বলেন, ‘দোয়া করি হায়াৎ ভাই যেন দ্রুত সুস্থ হয়ে আমাদের মাঝে ফিরে আসেন। এমন মেধাবী, কর্মঠ এবং দায়িত্ববান পরিচালকের এই মুহূর্তে আমাদের সিনেমা শিল্পের হাল ধরার জন্য খুব প্রয়োজনে।


বিবার্তা/অভি/জহির

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

৪৬, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ

কারওয়ান বাজার (৬ষ্ঠ তলা), ঢাকা-১২১৫

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanational@gmail.com, info@bbarta24.net

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com