ব্যাপক সমালোচনার মুখে স্থগিত শেখ রাসেল টাওয়ারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান
প্রকাশ : ২৭ অক্টোবর ২০২১, ২০:৫২
ব্যাপক সমালোচনার মুখে স্থগিত শেখ রাসেল টাওয়ারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠান
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ারের উদ্বোধন প্রধানমন্ত্রীকে দিয়ে না করানো, চাঁদা নিয়ে অনুষ্ঠান আয়োজনসহ নানা সমালোচনার মুখে পড়ে অবশেষে স্থগিত করা হয়েছে ভবনটির উদ্বোধনী অনুষ্ঠান।


জানা যায়, শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ার ভবনের উদ্বোধন হওয়ার কথা ছিল আগামী ৩০ অক্টোবর (শনিবার)। এ লক্ষ্যে পুরো প্রস্তুতিও নিচ্ছিলেন আয়োজকরা। কিন্তু বিপত্তি বাধে উদ্বোধনী অনুষ্ঠান উপলক্ষে তাদের প্রকাশিত একটি চিঠিকে ঘিরে। চিঠিটি বিবার্তা২৪ডটনেটের হাতে এসেছে।


শেখ রাসেল টাওয়ার কল্যাণ সমিতির আহ্বায়ক সরোজ কুমার সরকার ও সংগঠনটির সদস্য সচিব মোহাম্মদ গোলাম মাওলা স্বাক্ষরিত ওই চিঠিতে বলা হয়, শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ারে বরাদ্দপ্রাপ্ত সকল সম্মানিত সহকর্মীদের সদয় অবগতির জন্য সবিনয়ে জানাচ্ছি যে, শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ারের ভবন উদ্বোধন ও শেখ রাসেলের জন্মদিন পালন উপলক্ষে আগামী ৩০ অক্টোবর (শনিবার) সন্ধ্যা ৬টা ১৫ মিনিটে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান উক্ত ভবনে আগমন করতে সদয় সম্মতি জ্ঞাপন করেছেন। এছাড়া শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ারে সর্বোচ্চ পর্যায়ের প্রশাসনিক ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত থাকবেন বলে আশা করা হচ্ছে।


চিঠিতে আরো বলা হয়, শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ারের উদ্বোধনী ও শহীদ শেখ রাসেলের জন্মদিন পালন উপলক্ষে অনুষ্ঠান সফলভাবে সম্পন্ন করতে শেখ রাসেল টাওয়ার কল্যাণ সমিতির কার্যকরি পরিষদ গত ১৫ ও ১৬ অক্টোবর সভা আহ্বান করে একটি অর্থ সংগ্রহ এবং ব্যবস্থাপনা উপকমিটি গঠন করে। উক্ত অর্থ সংগ্রহ এবং ব্যবস্থাপনা উপকমিটির ২১ অক্টোবরের তারিখের সভার সিদ্ধান্ত মোতাবেক ভবনে বরাদ্দপ্রাপ্ত প্রত্যেক এ্যালটি সহকর্মীদের নিকট থেকে ৫০০ টাকা হারে চাঁদা আদায়ের সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। উল্লিখিত উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ও জন্মদিন সুষ্ঠু ও সফলতার সাথে উদযাপনের জন্য উপরোক্ত সিদ্ধান্ত মোতাবেক অর্থ সংগ্রহ এবং ব্যবস্থাপনা উপকমিটির নিকট ৫০০ টাকা হারে চাঁদা পরিশোধ করতে আপনাকে বিনীত অনুরোধ করছি।


এই চিঠির সিদ্ধান্ত নিয়ে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া রয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়ের শীর্ষ পর্যায়ের দায়িত্বপ্রাপ্তদেরও। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন জায়গায় শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ার উদ্বোধন প্রধানমন্ত্রীকে দিয়ে না করানো, চাঁদা নিয়ে অনুষ্ঠান আয়োজনের ব্যাপক সমালোচনা শুরু হয়।


এ বিষয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ সামাদ বিবার্তাকে বলেন, ভি‌সি ম‌হোদ‌য়ের পিএস স‌রোজ কুমার সরকার আমা‌কে টে‌লি‌ফো‌নে জানান যে, উপাচার্য শহীদ শেখ রা‌সেল টাওয়ার উদ্বোধন কর‌বেন এবং আমা‌কে বি‌শেষ অতিথি করা হ‌য়ে‌ছে। ‌স‌রোজ কুমারকে আমি ব‌লে‌ছি যে, যদ্দুর ম‌নে প‌ড়ে ঢাকা বিশ্ব‌বিদ্যাল‌য়ের অনেকগুলো স্থাপনার সঙ্গে এই ভব‌নের ভি‌ত্তিপ্রস্তর স্থাপন ক‌রে‌ছেন, প্রধানমন্ত্রী বঙ্গবন্ধুকন্যা শেখ হা‌সিনা এবং তি‌নি শেখ রা‌সে‌লের ব‌ড়‌বোন। রেওয়াজ অনুযায়ী যি‌নি ভি‌ত্তিপ্রস্তর স্থাপন ক‌রেন, তি‌নিই সেই স্থাপনার উদ্বোধন করে থা‌কেন। তাই, প্রধানমন্ত্রী‌কে দি‌য়েই এই ভবন উদ্বোধন করা‌নো উচিত হ‌বে।


তিনি বলেন, বিষয়‌টি অত্যন্ত স্পর্শকাতর এবং জা‌তির পিতার প‌রিবা‌রের স‌ঙ্গে সম্পর্কিত। সুতরাং প্রধানমন্ত্রী বা বঙ্গবন্ধু প‌রিবা‌রের অজ্ঞাতসা‌রে আমি এমন অনুষ্ঠানে যোগ দিতে পারি না। আমার নাম আমন্ত্রণপত্রে না দেয়ার জ‌ন্য আমি ব‌লে দি‌য়ে‌ছি। চাঁদা তু‌লে এই অনুষ্ঠান করা হ‌চ্ছে কিনা সে বিষ‌য়ে আমার কিছু জানা নেই।


শেখ রাসেল টাওয়ার ভবনের ভিত্তিপ্রস্তরের বিষয়ে জানতে চাইলে ভবনের ইঞ্জিনিয়ার জাবেদ আলম মৃধা বিবার্তাকে বলেন, এ বিল্ডিংয়ের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন হয়নি। ৭ মার্চে প্রধানমন্ত্রী অনেকগুলো ভবনের উদ্বোধন করলেও এটা করা হয়েছে কিনা তা ফাইল দেখে বলতে হবে। আপনি কালকে দুপুরের পর আসলে ফাইল দেখে বিস্তারিত বলতে পারবো।


অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে শেখ রাসেল টাওয়ার কল্যাণ সমিতির আহ্বায়ক সরোজ কুমার সরকার বিবার্তাকে বলেন, শহীদ শেখ রাসেল টাওয়ারের এটা উদ্বোধনী অনুষ্ঠান ছিল না, আমাদের অভ্যন্তরীণ একটা প্রোগ্রাম ছিল। এটা ক্যান্সেল করে দেয়া হয়েছে।


উল্লেখ্য, স‌রোজ কুমা‌র সরকা‌র স্বাক্ষ‌রিত প‌ত্রেই ঢা‌বি উপাচার্য কর্তৃক রা‌সেল টাওয়ার উদ্বোধনের কথা বলা হ‌য়েছে।


বিবার্তা/রাসেল/আরকে

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

পদ্মা লাইফ টাওয়ার (লেভেল -১১)

১১৫, কাজী নজরুল ইসলাম এভিনিউ,

বাংলামোটর, ঢাকা- ১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: bbartanews24@gmail.com ​, info@bbarta24.net

© 2021 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com