নীরব ক্রীড়াঙ্গনকে সরব করলেন কুবি উপাচার্য
প্রকাশ : ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৭:৫৩
নীরব ক্রীড়াঙ্গনকে সরব করলেন কুবি উপাচার্য
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

দীর্ঘদিন নীরব থাকা কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) ক্রীড়াঙ্গনকে সরব করিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়টির উপাচার্য অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরী। তার নানামুখী উদ্যোগে বিশ্ববিদ্যালয়টির ক্রীড়াঙ্গন এখন পুরোদমে এগিয়ে চলেছে। ফুটবল, ক্রিকেট, ব্যাডমিন্টন, হকি, দাবা-ক্যারাম, ভলিবলসহ নানা ক্রীড়ায় কুবি ক্যাম্পাস এখন মাতোয়ারা।


জানা যায়, ২০১১ সালে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রথম আন্তঃবিভাগ ফুটবল প্রতিযোগিতার আয়োজন করা হয়। সে বছরে অপ্রীতিকর ঘটনার কারণে আন্তঃবিভাগ ফুটবল প্রতিযোগিতা স্থগিত করে দেয় প্রশাসন। এ ঘটনার পর থেকে শিক্ষার্থীরা বিভিন্ন সময় দাবি করে আসলেও কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে আন্তঃবিভাগ ফুটবল প্রতিযোগিতা আয়োজন করতে সাহস করেনি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। ফলে দীর্ঘ সাত বছর কুবিতে আন্তঃবিভাগ ফুটবল প্রতিযোগিতা স্থগিত থাকে। ২০১৮ সালের ৩১ জানুয়ারি



কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে উপাচার্য হিসেবে অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরী যোগদান করেন। তিনি শিক্ষার্থীদের সহশিক্ষা কার্যক্রম স্থগিত থাকার বিষয়টি জানার পর সাহসিকতা নিয়ে আন্তঃবিভাগ ফুটবল প্রতিযোগিতা আয়োজন করার উদ্যোগ গ্রহণ করেন। একই বছরের ১০ সেপ্টেম্বর তিনি কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৯ টি বিভাগের মধ্যকার আন্তঃবিভাগ ফুটবল প্রতিযোগিতা-২০১৮ এর শুভ উদ্বোধন করেন। কোনো অপ্রীতিকর ঘটনা ছাড়াই ফুটবল প্রতিযোগিতা ২০১৮ সম্পন্ন হয়। ২৬ সেপ্টেম্বর কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় আন্তঃবিভাগ ফুটবল প্রতিযোগিতা -২০১৮ এর চূড়ান্ত পর্বে বিজয়ী চ্যাম্পিয়ন, রানার্স আপ, ৩য় স্থান অধিকারী দলের মাঝে পুরস্কার বিতরণ করেন। দীর্ঘদিন বন্ধ থাকা ক্রীড়া চালু করে সাহসিকতার পরিচয় দেয়ায় উপাচার্য অধ্যাপক ড.এমরান কবির চৌধুরী ব্যাপক প্রশংসাও পেয়েছিলেন।


আরো জানা যায়, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে দীর্ঘদিন ধরে মেয়েরা সহ শিক্ষা কার্যক্রম /খেলাধুলা থেকে বঞ্চিত হওয়ার বিষয়টি জানতে পেরে উপাচার্য ড. এমরান কবির চৌধুরী নাখোশ হয়ে মেয়েদের জন্য উদ্যোগ নিলেন। ২০১৮ সালে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে ১ম আন্তঃবিভাগ ব্যাডমিন্টন (ছাত্রী) প্রতিযোগিতা -২০১৮ আয়োজন করা হয়। অত্যন্ত সফলভাবে এই প্রতিযোগিতা সম্পন্ন হয়। চূড়ান্ত পর্বে বিজয়ীদের মাঝে তিনি পুরস্কার বিতরণ করেন।



এদিকে দীর্ঘদিন ধরে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় আন্তঃবিভাগ ক্রিকেট প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হয়নি জানতে পেরে উদ্যোগ নিলেন কুবি উপাচার্য। ২০১৯ সালে বন্ধ থাকা আন্তঃবিভাগ ক্রিকেট প্রতিযোগিতা পুনরায় চালু করেন তিনি। শিক্ষার্থীদের ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে এই ক্রিকেট প্রতিযোগিতা সম্পন্ন হয়।



কুবি উপাচার্যের নানামুখী উদ্যোগে বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রীড়াঙ্গনে এসেছে সফলতাও। ২০১৮ সালে আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় হকি খেলায় ৩য় স্থান অধিকার করে কুবি। ২০১৯ সালে আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় হকি প্রতিযোগিতায়ও ৩য় স্থান অধিকার করেন বিশ্ববিদ্যালয়টি। বিভিন্ন খেলায় নিজে গ্যালারিতে উপস্থিত থেকে শিক্ষার্থীদের উৎসাহও দিয়েছিলেন উপাচার্য। ২০১৮ সালে আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় দাবা ও ক্যারাম প্রতিযোগিতায় ৩য় স্থান অর্জন করেন কুবি।


ক্রীড়াঙ্গনে নানামুখী উদ্যোগের বিষয়ে জানতে চাইলে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. এমরান কবির চৌধুরীর বিবার্তাকে বলেন, আমি শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার পাশাপাশি এক্সটা কারিকুলামের সাথে সম্পৃক্ত করতে উদ্যোগগুলো নিয়েছি।



তিনি বলেন, আমি দায়িত্বে আসার আগে এখানে মারামারি লেগে অনেক খেলাধুলা বন্ধ হয়ে গেছে। এটা শুনে আমি এটাকে চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি। নিজে দায়িত্ব নিয়ে সরেজমিনে মাঠে থেকে ক্রীড়াগুলো সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন করিয়েছি।


কুবি উপাচার্য বলেন, কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীদের জন্য কোনো জিমনেসিয়াম ছিল না। আমি সেটা করে সেখানে যন্ত্রপাতির ব্যবস্থা করেছি। শিক্ষার্থীদের কল্যাণে কুবি প্রশাসন সবসময় পাশে থাকবে বলে জানান তিনি।


বিবার্তা/রাসেল/জাই

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com