এবার সেই বাসের মালিক গ্রেফতার
প্রকাশ : ০১ আগস্ট ২০১৮, ১৮:৪৯
এবার সেই বাসের মালিক গ্রেফতার
বিবার্তা প্রতিবেদক
প্রিন্ট অ-অ+

রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে শহীদ রমিজউদ্দিন ক্যান্টনমেন্ট কলেজের দুই শিক্ষার্থীর নিহত হওয়ার ঘটনায় ঘাতক সেই বাসের মালিককে গ্রেফতার করা হয়েছে। বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে র‌্যাব দফতর থেকে এমন তথ্য জানানো হয়েছে।


র‌্যাব জানায়, বিমানবন্দর সড়কে (ঢাকা মেট্রো ব ১১-৯২৯৭) বাসটির চাপায় দুই শিক্ষার্থী নিহত হয়েছিল। এ ঘটনায় এদিন বিকেলে ওই বাসের মালিক মো. শাহদাৎ হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।


এর আগে গত সোমবার বিকেলে বরগুনা থেকে জাবালে নূর পরিবহনের সেই বাসটির চালক মাসুম বিল্লাহকে (৩০) গ্রেফতার করে র‌্যাব। এ ছাড়াও হেলপার এনায়েত (৩৮), রিপন (৩২) চালক মো. জুবায়ের (৩৬) ও সোহাগ (৩৫) নামের আরো চারজনকে গ্রেফতার করা হয়।


পরে র‌্যাব জাবালে নূর পরিবহনের বাসের চালক মাসুম বিল্লাহ ও চার জন হেলপারকে ক্যান্টনমেন্ট থানার মাধ্যমে গোয়েন্দা বিভাগে প্রেরণ করে। গোয়েন্দা বিভাগ সুষ্ঠু তদন্তের স্বার্থে চালকের বিরুদ্ধে আদালতে রিমান্ড প্রার্থনা করেন ডিএমপি’র গোয়েন্দা উত্তর বিভাগের মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশ পরিদর্শক কাজী শরিফুল ইসলাম। এর পরিপ্রেক্ষিতে ঘাতক বাসচালক মাসুম বিল্লাহকে ৭ দিন রিমান্ড মঞ্জুর করেছেন আদালত।


উল্লেখ্য, গত ২৯ জুলাই দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে শহীদ রমিজ উদ্দিন স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থীরা রেডিসন হোটেলের বিপরীত পার্শ্বে জিল্লুর রহমান ফ্লাইওভারের ঢালে রাস্তার ফুটপাথে বাসের জন্য অপেক্ষা করছিল। হঠাৎ জাবালে নূর পরিবহনের একটি বাস বেপরোয়া গতিতে এসে তাদেরকে চাপা দেয়। এ সময় দিয়া খানম মিম ও আব্দুল করিম রাজিবসহ কয়েকজন ছাত্র-ছাত্রী গুরুতর আহত হয়। আহতদের দ্রুত কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মিম ও রাজিবকে মৃত ঘোষণা করেন।


পরে ওইদিন রাতেই নিহত শিক্ষার্থী মিমের বাবা মো. জাহাঙ্গীর বাদি হয়ে ক্যান্টনমেন্ট থানায় একটি মামলা করেন।


এদিকে, ঘটনার পর ঢাকা ক্যান্টনমেন্ট এলাকার ওই শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা বেরিয়ে এসে যানবাহনে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ শুরু করে। ওই ঘটনায় সোমবারও কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালের সামনের এলাকায় শিক্ষার্থীরা ঢাকার বিমানবন্দর সড়কের দু’দিক অবরোধ করে কয়েক ঘণ্টা বিক্ষোভ দেখায়। এছাড়া গভার্নমেন্ট ল্যাবরেটরি হাইস্কুলের শিক্ষার্থীরা মিরপুর সড়ক অবরোধ করলে পুলিশ এসে লাঠিচার্জ করে তাদের তুলে দেয়।


এ ছাড়াও গতকাল মঙ্গলবার শিক্ষার্থীরা মতিঝিল শাপলা চত্বরসহ যাত্রাবাড়ী থেকে উত্তরা পর্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সড়কের ২০টি পয়েন্ট অবরোধ করেন। এ সময় বেশকিছু গাড়ি ভাঙচুর ও আগুন দেয়া হয়। এ ধারাবাহিকতায় এদিন সকাল থেকে ফের শিক্ষার্থীরা আন্দোলনে নেমেছে। আন্দোলনে অংশ নেয়া শিক্ষার্থীদের ‘উই ওয়ান্ট জাস্টিস’ স্লোগান দিতে দেখা গেছে।


বিবার্তা/খলিল/সোহান/কাফী

সর্বশেষ খবর
সর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক : বাণী ইয়াসমিন হাসি

বি-৮, ইউরেকা হোমস, ২/এফ/১, 

ময়মনসিংহ রোড, শাহবাগ, ঢাকা-১০০০

ফোন : ০২-৮১৪৪৯৬০, মোবা. ০১৯৭২১৫১১১৫

Email: [email protected], [email protected]

© 2016 all rights reserved to www.bbarta24.net Developed By: Orangebd.com